সুষ্ঠু ভোট নিশ্চিত হলে আগামি নির্বাচনে আমরা তিনশ আসনে প্রার্থী দেব : বকশীগঞ্জে সাবেক রাষ্ট্রপতি এরশাদ


সেবা ডেস্ক: 

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ এমপি বলেছেন আগামি নির্বাচন অবাধ ও নিরপেক্ষ হলে আমরা তিনশ আসনে প্রার্থী দেব।

আওয়ামী লীগ ও আমরা মিলেই ড়্গমতায় ভাগাভাগি করে থাকব। কারণ জাতীয় পার্টি এখন বাংলাদেশের রাজনীতিতে সবচেয়ে বড় ফ্যাক্টর ।

বৃহস্পতিবার দুপুর ২ টায় তিনি জামালপুরের বকশীগঞ্জ উপজেলার জব্বারগঞ্জ বাজারে বন্যার্তদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ ও পথ সভা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।
তিনি আরো বলেন বিএনপি আমাকে জেলের ভেতরে হত্যা করতে চেয়েছিল কিন্তু আল্লাহ আমাকে বাঁঁচিয়ে রেখেছেন।

তারা জাতীয় পার্টিকে ধ্বংস করতে চেয়েছিল। তা সফল হয়নি। আগামি নির্বাচনে আমরা ক্ষমতায় জেতে চাই । তাই আপনারা জাতীয় পার্টির প্রার্থীকে ভোট দেবেন।

সাবেক এই রাষ্ট্রপতি বলেন , জোড় করে সিল মারা না হলে , সুষ্ঠু ভোট হলে আমরা ৩ শ আসনে প্রার্থী দেব। আমরা সিল মারার রাজনীতিতে বিশ্বাস করি না। তিনি সারাদেশের নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহবান জানান।

উপজেলা জাতীয় পার্টির সাংগঠনিক সম্পাদক এসএম আবু সায়েমের সঞ্চালনায় এবং

 বকশীগঞ্জ উপজেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি হামিদুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত ওই পথ সভায় এসময় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন জাতীয় পার্টির মহাসচিব রুহুল আমিন হাওলাদার এমপি,

জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী এমএ সাত্তার, জেলা জাতীয় পার্টির সিনিয়র সহ সভাপতি হাফিজুর রহমান বাদশা, বকশীগঞ্জ উপজেলা জাতীয় পার্টির সাধারণ সম্পাদক একেএম হামিদুলস্নাহ,

উপজেলা জাতীয় যুব সংহতির সভাপতি জিয়াউর রহমান, উপজেলা ছাত্র সমাজের সভাপতি খোকন আকন্দ প্রমুখ।

 এছাড়াও জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের একানত্ম সচিব মেজর (অবঃ) খালেদ আখতার সফরসঙ্গী হিসেবে উপসি'ত ছিলেন।
পথসভা শেষে উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নের ২ হাজার ৫০০ পরিবারকে ত্রাণ বিতরণ করা হয়।

এর আগে দুপুর ১২ টায় হেলিকপ্টার যোগে বকশীগঞ্জ খাতেমুন মঈন মহিলা ডিগ্রি কলেজ মাঠে পৌঁছলে সাবেক মন্ত্রী এমএ সাত্তার , উপজেলা জাতীয় পার্টির নেতৃবৃন্দ এবং কলেজের কয়েকশত শিক্ষার্থী সাবেক রাষ্ট্রপতিকে অভিনন্দন ও ফুলেল শুভেচ্ছা জানান।

 এসময় উপজেলা চেয়ারম্যান আবদুর রউফ তালুকদার, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. আবু হাসান সিদ্দিক, বকশীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আসলাম হোসেন ,

ধানুয়া কামালপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোসত্মফা কামাল, খাতেমুন মঈন মহিলা ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ বজলুল করিম তালুকদার শাহীন প্রমুখ উপসি'ত ছিলেন। 

, , , ,