পরিকল্পনা করেই রোহিঙ্গা নির্যাতন'


'পরিকল্পনা করেই রোহিঙ্গা নির্যাতন'
ছবি: ইন্টারনেট থেকে

মায়ানমার সেনাবাহিনী অত্যন্ত সুপরিকল্পিতভাবেই বাংলাদেশের সীমান্তে রোহিঙ্গাদের গ্রাম পুড়িয়ে দিচ্ছে এবং অত্যাচার চালাচ্ছে। এমনটাই দাবি আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থা অ্যামনেষ্টি ইন্টারন্যাশনালের। এ বিষয়ে নাকি তাদের হাতে সুনির্দিষ্ট প্রমাণও রয়েছে বলে দাবি করেছে তারা। অ্যামনেষ্টি জানাচ্ছে, সেখানে গত তিন সপ্তাহে আশিটিরও বেশি স্থানে বিশাল এলাকা পুড়িয়ে দেওয়া হয়েছে।
এ সবের ছবি ধরা পড়ছে উপগ্রহের ক্যামেরায়। অ্যামনেস্টির অভিযোগ, মায়ানমারের সেনা আইন নিজের হাতে তুলে নিয়েছে এবং গ্রামের পর গ্রাম পুড়িয়ে রোহিঙ্গাদের ওপরে নির্বিচারে গুলি চালিয়েছে। সেখানে আরো দেখা যাচ্ছে, বেছে বেছে রোহিঙ্গা গ্রামগুলোতেই আগুন দেওয়া হয়েছে।
এদিকে চাপ বাড়িয়েছেন লন্ডন সফররত মার্কিন বিদেশমন্ত্রী রেক্স টিলারসন। তিনি বলেছেন, ‘‌রোহিঙ্গাদের অত্যাচার মোটেই গ্রহণযোগ্য নয় এবং অবিলম্বে এটা বন্ধ করতে হবে। আং সান সু চি যে কঠিন পরিস্থিতির মুখোমুখি হয়েছেন, সেটা আমরা বুঝতে পারছি। জাতিগত পরিচয়ের বাইরে গিয়ে মানুষের পাশে দাঁড়াতে হবে।
’‌
ব্রিটেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বরিস জনসন বলেছেন, ‘‌রোহিঙ্গাদের ওপর মানবাধিকার লঙ্ঘনের ঘটনা বন্ধ করতে আং সান সু চি-কেই তার ক্ষমতা ব্যবহার করতে হবে। যেভাবে তিনি গণতন্ত্রের জন্য লড়াই করেছেন, তাতে সারা বিশ্বের মানুষ তাঁর গুণমুগ্ধ। কিন্তু এবার ফের তাঁকে পরীক্ষা দিতে হবে। সূত্র: ইন্টারনেট