প্রশ্ন ক্রয় করার ছদ্মবেশে র‌্যাব
প্রশ্ন ক্রয় করার ছদ্মবেশে র‌্যাব

প্রশ্ন ক্রয় করার ছদ্মবেশে র‌্যাব

RAB-in-the-disguise-of-purchasing-the-question

সেবা ডেস্ক: এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার প্রশ্নফাঁস ঠেকাতে নানা পদক্ষেপ নিয়েছে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীসহ বিভিন্ন সংস্থা। তারই অংশ হিসেবে এবার ফাঁস হওয়া প্রশ্ন কিনতে ছদ্মবেশে ওত পেতে আছে র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটেলিয়ন (র‌্যাব)। ২ এপ্রিল সোমবার র‌্যাবের মহা-পরিচালক (ডিজি) বেনজীর আহমেদ র‌্যাব সদর দফতরে এ তথ্য জানান।

এই ফাঁদে কাউকে পা না দেয়ার পরামর্শ দিয়ে তিনি বলেন, প্রশ্নপত্র ফাঁসের মতো জঘন্য অপরাধ রোধে র‌্যাব সতর্ক আছে। যদি কোনো শিক্ষার্থীর কাছে পরীক্ষার আগে ফাঁস হওয়ার নামে সত্য বা মিথ্যা প্রশ্নপত্র পাওয়া যায়, তাহলে ওই শিক্ষার্থীকেও আইনের আওতায় নেয়া হবে। এতে ওই শিক্ষার্থীর ক্যারিয়ার ধ্বংস হয়ে গেলেও এর দায়দায়িত্ব সংশ্নিষ্ট শিক্ষার্থী ও তার অভিভাবকদের নিতে হবে।


এইচএসসি পরীক্ষা শুরুর আগে গত কয়েকদিনে দেশের বিভিন্ন এলাকা থেকে প্রশ্ন ফাঁসের নামে প্রতারক চক্রের নয়জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে জানিয়ে র‌্যাব ডিজি বলেন, তাদের কাছে কোনো প্রশ্নপত্র পাওয়া যায়নি। তারা শুধু প্রশ্নপত্র দেয়ার কথা বলে প্রতারণা করে টাকা হাতিয়ে নিচ্ছিল।


বেনজীর আহমেদ বলেন, প্রশ্নপত্র ফাঁসের চেষ্টাকারীরাও সন্ত্রাসী। এসব সন্ত্রাসীকে জঙ্গিদের মতো করেই নিশ্চিহ্ন করা হবে। এ জন্য শিক্ষক, শিক্ষার্থী, অভিভাবকসহ সবার সহযোগিতা দরকার। দেশবাসীকে নিয়ে ঐক্যবদ্ধভাবে এই পাপ নির্মূল করা হবে। সবাই ঐক্যবদ্ধ হলে কেউ এমন জঘন্য অপরাধ করার সুযোগ পাবে না। র‌্যাব এই চক্রকে নিশ্চিহ্ন করতে চায়।


এর আগে এসএসসি পরীক্ষায় কোচিং সেন্টারগুলো প্রশ্ন ফাঁসে জড়িত ছিল। তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার বিষয়ে র‌্যাব ডিজি বলেন, পুরনো ঘটনাগুলোর তদন্ত চলছে। কারও বিরুদ্ধে সুনির্দিষ্ট অভিযোগ পেলে তাকে গ্রেফতার করা হবে।

, , ,