নন্দীগ্রামে আওয়ামী লীগের পাল্টাপাল্টি কমিটি, বিক্ষোভে উত্তেজনা

নন্দীগ্রামে আওয়ামী লীগের পাল্টাপাল্টি কমিটি, বিক্ষোভে উত্তেজনা



নন্দীগ্রাম বগুড়া) প্রতিনিধি : বগুড়ার নন্দীগ্রামে পৌর আওয়ামী লীগের নতুন কমিটিতে মুক্তার হোসেন বকুলকে সভাপতি ও পৌরসভার প্যানেল মেয়র শাহেরুল ইসলামকে সাধারণ সম্পাদক করা হয়েছে।

 নতুন কমিটি ঘোষণার ৪৮ ঘন্টা পরই আরেকটি স্ব-ঘোষিত পাল্টা কমিটিকে কেন্দ্র করে নেতাকর্মীদের মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করছে। আজ রোববার সকালে ও বিকেলে দু’গ্রæপের পাল্টাপাল্টি বিক্ষোভ মিছিল ও সভা-সমাবেশ হয়েছে। এদিকে পাল্টা কমিটির বিষয়ে ব্যবস্থা নিচ্ছেন জেলার নেতারা। 

দলীয় সূত্রে জানা গেছে, চলতি বছরের গত ১৫ জানুয়ারি বিকেলে পৌর আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সেই সম্মেলনে জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মজিবর রহমান মজনু, সাধারণ সম্পাদক রাগেবুল আহসান রিপু, যুগ্ম সাধারন সম্পাদক আসাদুর রহমান দুলু, উপজেলার নেতারাসহ পৌর আওয়ামী লীগের ৯টি ওয়ার্ডের কাউন্সিলরবৃন্দ এবং বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। জেলার নেতারা উপস্থিত থাকলেও পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও মেয়র আনিছুর রহমান উপস্থিত ছিলেন না। যার কারণে নেতৃবৃন্দ প্রথম অধিবেশন শেষ করে দ্বিতীয় অধিবেশনে কাউন্সিলরদের কাছ থেকে সভাপতি পদে বকুল ও সম্পাদক পদে শাহেরুলের নামের প্রস্থাব গ্রহণ করেন। সম্মেলনে আর কোনো প্রতিদ্ব›দ্বী ছিলেন না। নতুন কমিটি পরে ঘোষণা করা হবে জানিয়ে ওইদিন জেলার নেতারা চলে যান। গত শুক্রবার জেলা আওয়ামী লীগের নির্দেশে উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি রফিকুল ইসলাম রফিক ও ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার হোসেন রানা পৌর শাখার নতুন কমিটিতে বকুলকে সভাপতি এবং শাহিরুলকে সাধারণ সম্পাদক ঘোষণা করে বিজ্ঞপ্তি দেন। নতুন কমিটি ঘোষণার ৪৮ ঘন্টা পর গতকাল রোববার সকালে আরেকটি পাল্টা কমিটি ঘোষণা করেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি আলী হাসান। পাল্টা কমিটিতে আব্দুর রাজ্জাক প্রামানিককে সভাপতি, আব্দুর রাজ্জাক মন্ডলকে সাধারণ সম্পাদক ও তারেক মাহমুদ ডিউকে সাংগঠনিক সম্পাদক ঘোষণা করা হয়। নেতারা বলছেন, তারা কেউই পৌর আওয়ামী লীগের সদস্য নন। উপজেলা কমিটির সহ সভাপতি ব্যক্তিগতভাবে কমিটি ঘোষণা করতে পারেন না। দু’গ্রæপের পাল্টাপাল্টি বিক্ষোভ মিছিল ও সভা সমাবেশকে ঘিরে নেতাকর্মীরা মুখোমুখী অবস্থান নেওয়ায় যেকোনো সময় অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটার আশংকা করছেন স্থানীয়রা।

পাল্টা কমিটির সভাপতি আব্দুর রাজ্জাক প্রামানিক এ কমিটির বিষয়ে কথা বলতে রাজি হননি। 

নন্দীগ্রাম উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার হোসেন রানা বলেন, দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গ করে বিগতসময়ে এরাই পাল্টা কমিটি করেছিল। একদশক পর তারা আবারও দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের প্রতিযোগিতায় মেতেছে। বিষয়টি জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সম্পাদককে অবহিত করা হয়েছে। 

এবিষয়ে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক রাগেবুল আহসান রিপু বলেন, পাল্টা কমিটির বিষয়ে শুনেছি। এবিষয়ে আলোচনা করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। 

নন্দীগ্রাম থানার ওসি হাসান আলী বলেন, আইনশৃঙ্খলা যাতে অবনতি না হয় সে বিষয়ে আমরা সজাগ রয়েছি। তবে গুরুত্বপূর্ণ স্থানে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।  

  


শেয়ার করুন

-সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

0comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।