উত্তেজনা প্রশমনে বরইতলী গ্রামের দুই পক্ষের সাথে কথা বললেন এমপি জয়

উত্তেজনা প্রশমনে বরইতলী গ্রামের দুই পক্ষের সাথে কথা বললেন এমপি জয়



 : সিরাজগঞ্জের কাজিপুরে  চোর সন্দেহে নির্যাতন ও এর সূত্রে ধরে শালিসি বৈঠকে প্রতিপক্ষের লোকজনের উপর হামলায় উত্তেজনাপূর্ণ  বরইতলী গ্রাম পরিদর্শন করেন সিরাজগঞ্জ-১ আসনের সংসদ সদস্য তানভীর শাকিল জয়। 


মঙ্গলবার(১০ মে) বিকেল চারটায় তিনি  উপজেলা আ.লীগের নেতৃবৃন্দকে নিয়ে ওই গ্রামে যান। গ্রামের আটচালা মন্দিরে  মারপিটের শিকার উভয়পক্ষের লোকজনের সাথে তিনি কথা বলেন। 


এসময় উভয় পক্ষের মুরব্বীগণ উপস্থিত ছিলেন। এমপি জয় তাদের উদ্দেশ্যে বলেন, জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এখন মারামারি নয় উন্নয়নের পথে এগিয়ে যাচ্ছে। 


এসময়  কাজিপুরের শান্তিপ্রিয় মানুষ নিজেদের মধ্যে ভুল বোঝাবুঝি থেকে মারপিটের মতো ঘটনা ঘটাবে এটি দুঃখজনক। কজিপুরের হিন্দু মুসলিম ভাই ভাই। সব কাজই আমরা মিলেমিশে করি।  বিগত পঞ্চাশ বছরেও কাজিপুরে সাম্প্রদায়িক দাঙ্গার ঘটনা ঘটেনি উল্লেখ করে জয় বলেন, ‘ আমরা একই সাথে ঈদ এবং পূজার আনন্দ শেয়ার করি। সবাই একই দলের কর্মি-সমর্থক।  তাই নিজেদের মধ্যেকার ভুল বোঝাবুঝি দূর করতে হবে। যারা প্রকৃত দোষী তাদের শাস্তির জন্যে আইন রয়েছে। সেখানে আমার কোন হস্তক্ষেপ থাকবে না। এমপির বক্তব্যের পরই গ্রামের দুই পক্ষ নিজেদের বিরোধ মিটিয়ে নেবার প্রতিশ্রæতি দেন।  


এসময় উপস্থিত ছিলেন কাজিপুর উপজেলা আ.লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব রেফাউ উদ্দিন মাস্টার, সাধারণ সম্পাদক ও কাজিপুর উপজেলা চেয়ারম্যান খলিলুর রহমান সিরাজী, পৌর মেয়র আব্দুল হান্নান তালুকদার, উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি উজ্জ্বল ভৌমিক, মারামারি মামলার বাদী তপন চন্দ্র হালদার প্রমূখ। 


উল্লেখ্য গত  শুক্রবার (৬ মে) বিকেল ৪ টায় উপজেলার বরইতলী হালদারপাড়ায় সাশিশি বৈঠকে প্রতিপক্ষের হামলায় ১২ জন আহত হয়। এ নিয়ে গ্রামের হালদার এবং মুসলিমদের মাঝে উত্তেজনার সৃষ্টি হয়।



শেয়ার করুন

সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

0comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।