অটোচালক হত্যাকান্ডের রহস্য উৎঘাটন করলো জামালপুর র‌্যাব

: শেরপুর জেলার নালিতাবাড়ি থানাধীন গারো পাহাড়ে কিশোর অটোচালক হত্যাকান্ডের রহস্য উৎঘাটন ও হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত ০২ জন গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-১৪, জামালপুর ক্যাম্প।

অটোচালক হত্যাকান্ডের রহস্য উৎঘাটন করলো জামালপুর র‌্যাব



 র‌্যাবের প্রেস বিজ্ঞপ্তি থেকে জানা যায়, গত ১২/০৯/২০২২ ইং তারিখ সকাল অনুমান ০৯.০০ ঘটিকার সময় শেরপুর জেলার ঝিনাইগাতী থানাধীন গুরুচরণ দুধনই গ্রামের জনৈক মোঃ জহুরুল হক এর ছেলে মোঃ রফিক মিয়া (১৫) অটোরিক্সা নিয়ে গুরুচরণ দুধনই এলাকা হতে নিখোঁজ হয়। এ সংক্রান্তে ভিকটিমের পিতা ১২/০৯/২০২২ ইং তারিখ একটি নিখোঁজ ডায়েরী করে। উক্ত সংবাদ প্রাপ্তির পর হতেই র‌্যাব-১৪,সিপিসি-১,জামালপুর ক্যাম্প অনুসন্ধান শুরু  করে। পরবর্তীতে গত ১৩/০৯/২০২২ ইং শেরপুর সদর থানাধীন জামতলী গ্রামস্থ জনৈক আঃ করিমের বাড়ী হতে নিখোঁজ ছেলেটির ব্যবহৃত অটোরিক্সাটি শেরপুর থানা পুলিশ উদ্ধার করতে সক্ষম হয়। অনুসন্ধানে জানা যায় জনৈক মোঃ মোস্তফা নামক ব্যক্তি তার আতœীয়ের বাড়িতে অটোরিক্সাটি রেখে আতœগোপন করে। নিখোঁজ ভিকটিমের পরিবার ও আতœীয় স্বজনের খোঁজাখুজির একপর্যায়ে গারো মহিলার তথ্যের ভিত্তিতে ১৪/০৯/২০২২ ইং তারিখ  দুপুর অনুমান ১৪.০০ ঘটিকার সময় শেরপুর জেলার নালিতাবাড়ি থানাধীন বারোমারী মিশন হইতে মধুটিলা ইকোপার্কগামী রাস্তার দক্ষিণ পূর্বে পূর্বসমশ্চূড়া গ্রামস্থ গলাচিপা পাহাড়ের অনুমান ১০০/১৫০ ফুট উপরে জঙ্গলের ভিতর লাশ দেখতে পায়। ভিকটিমের পরিবার ও আতœীয় স্বজন লাশের পরিহিত জামাকাপড় দেখে মোঃ রফিক মিয়া (১৫) লাশ চিহ্নিত করে। উল্লেখিত সংবাদ প্রাপ্তির সাথে সাথেই র‌্যাব-১৪, সিপিসি-১, জামালপুর ক্যাম্প উক্ত ঘটনার ছায়া তদন্ত শুরু করে এবং আসামী গ্রেফতারের জন্য অভিযান পরিচালনা করে। বিভিন্ন তথ্য উপাত্ত সংগ্রহ ও বিশ্লেষণ করে ময়মনসিংহ জেলার ভালুকা থানাধীন সিড ষ্টোর এলাকা হতে ১৯/০৯/২০২০ ইং ১৭.৩০ ঘটিকায় আতœগোপনে থাকা হত্যাকান্ডের অন্যতম প্রধান সন্দিগ্ধ মোঃ মোস্তফা (২৬), পিতা-সৈয়দুর রহমান, সাং-সারিকালিনগর (বালুরচর),থানা-ঝিনাইগাতি, জেলা-শেরপুরকে আটক করা হয়। গ্রেফতারকৃত মোস্তাফা এর  দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে শেরপুর জেলার ঝিনাইগাতি থানাধীন দুধনই তালতলাস্থ নিজবাড়ি হতে হত্যাকান্ডের অন্যতম সহযোগী মোঃ নুর ইসলাম (৩৮),পিতা-মৃত উমর আলী শেখ, সাং-তালতলা দুধনই, থানা-ঝিনাইগাতি, জেলা-শেরপুরকে ১৯/০৯/২০২২ ইং ২১.৪৫ ঘটিকায় আটক করা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে আসামীদ্বয় হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে এবং হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত আরও কয়েকজনের নাম উঠে আসে। হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত অন্যান্য আসামীদের গ্রেফতারের চেষ্টা অব্যাহত আছে। গ্রেফতারকৃত আসামীদ্বয়কে নালিতাবাড়ি থানার মামলা নং-১৪,তারিখ-১৫/০৯/২০২২ ইং, ধারা-৩০২/২০১/৩৭৯/৩৪ মূলে সংশ্লিষ্ট থানায় হস্তান্তরের কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। 


এ ধরণের অপরাধের বিরুদ্ধে র‌্যাবের অভিযান অব্যাহত থাকবে।  



শেয়ার করুন

সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

0comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।