মুসলিম ব্রাদারহুডের সঙ্গে সংশ্লিষ্টতায় ১০৭০জন বরখাস্ত

মুসলিম ব্রাদারহুডের সঙ্গে সংশ্লিষ্টতায় ১০৭০জন বরখাস্ত
সেবা ডেস্ক: মিসরে নিষিদ্ধ সংঠন মুসলিম ব্রাদারহুডের সঙ্গে যুক্ত থাকার অভিযোগে দেশজুড়ে ১ হাজার ৭০ জনের বেশি শিক্ষককে বরখাস্ত করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসবাদের অভিযোগ আনা হয়েছে। সোমবার এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান দেশটির শিক্ষামন্ত্রী তারেক শওকি। তিনি বলেন, মুসলিম ব্রাদারহুডের সঙ্গে সংশ্লিষ্টতা থাকার কারণে ওই শিক্ষকদের বরখাস্ত করা হয়েছে। তিনি ওই শিক্ষকদের ‘কাজ করার অযোগ্য’ হিসেবে বর্ণনা করেন। এছাড়া মিসরের স্কুলগুলো থেকে ‘ধ্বংসাত্মক’  ও ‘রাজনৈতিকভাবে চরমপন্থি দৃষ্টিভঙ্গি’ দূর করার খাতিরে তাদের বিরুদ্ধে তদন্ত চালু করার প্রতিশ্রুতি দেন। লন্ডন-ভিত্তিক গণমাধ্যম দ্য নিউ আরবের বরাত দিয়ে এ খবর দিয়েছে দ্য মিডল ইস্ট মনিটর।
এদিকে, স্থানীয় গণমাধ্যম আল-মাসরি আল-ইয়োমের এক প্রতিবেদনে দাবি করা হয়েছে, বরখাস্ত হওয়া শিক্ষকদের কয়েকজনকে মৃত্যুদণ্ড  দেয়া হয়েছে। অনেকে মিসর ছেড়ে পালিয়েছেন।
রাষ্ট্র-পরিচালিত পত্রিকা আল-আহরাম জানিয়েছে, এখন থেকে শিক্ষক হওয়ার জন্য নতুন মানদণ্ড পূরণ করতে হবে। শওকি মঙ্গলবার এ বিষয়ে ঘোষণা দেয়ার কথা রয়েছে। শিক্ষক পদে আবেদন করার জন্য নতুন ইলেকট্রনিক পোর্টাল চালু বিষয়েও ঘোষণা দেয়ার কথা রয়েছে তার। তবে এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত কোনো ঘোষণা দেয়া হয়নি। প্রসঙ্গত, বর্তমানে মিসরজুড়ে মোট শিক্ষকের পদ খালি রয়েছে ৩ লাখ ২০ হাজারটি। শিক্ষকদের এই শূন্যস্থান পূরণ করতে এক বছর মেয়াদ চুক্তিতে ১ লাখ ২০ হাজার শিক্ষক নিয়োগ দিতে প্রস্তুত মিসর সরকার। আগ্রহীদের নতুন চালু করা পোর্টাল ব্যবহার করে চাকরির জন্য আবেদন করতে হবে। মন্ত্রণালয় প্রয়োজনে তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করবে। শওকি আরো জানান, এই ১ লাখ ২০ হাজার শিক্ষককে নিয়োগ দেয়া হবে রাষ্ট্রীয় বাজেটের বাইরে থেকে। তাদের সঙ্গে এক বছরের চুক্তিতে সরকারের খরচ হবে ১৬০কোটি মিসরীয় পাউন্ড।

 উল্লেখ্য, ২০১৩ সালে মুসলিম ব্রাদারহুডকে সন্ত্রাসী সংঠন হিসেবে ঘোষণা করে তৎকালীন মিসর সরকার।

 -সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

,

0 comments

Comments Please