ভারতের সাথে বাণিজ্য বৈষম্য কমাতে ভুমিকা রাখবে কামালপুর স্থলবন্দর

ভারতের সাথে বাণিজ্য বৈষম্য কমাতে ভুমিকা রাখবে কামালপুর স্থলবন্দর


সেবা ডেস্ক: প্রতিবেশি দেশ ভারতের সাথে বাণিজ্যিক বৈষম্য কমাতে গুরুত্বপুর্ণ ভুমিকা রাখবে নির্মাণাধীন জামালপুরের বকশীগঞ্জ উপজেলার কামালপুর স্থলবন্দর। 

আজ ২৪ মার্চ বুধবার দুপুরে বকশীগঞ্জের কামালপুর স্থলবন্দরের কার্যক্রম পরিদর্শনে এসে বাংলাদেশ স্থল বন্দর কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান অতিরিক্ত সচিব কে.এম তরিকুল ইসলাম এ কথা বলেন।

কামালপুর স্থলবন্দর নির্মান কাজের অগ্রগতিতে সন্তোষ প্রকাশ করে চেয়ারম্যান বলেন, বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় শেখ হাসিনার নের্তৃতে দেশ উন্নয়নের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। খুব কম সময়ের মধ্যে আমরা উন্নত দেশে রূপান্তর হবে।

তিনি আরও বলেন, নির্মান কাজ শেষ হওয়ার সাথে সাথে মাননীয় মন্ত্রী এই স্থল বন্দর উদ্বোধন করবেন। এই স্থলবন্দর চালু হলে এই এলাকার মানুষের জীবন মানের অমুল পরিবর্তণ ঘটবে।

তার এই সফরে তত্ববধায়ক প্রকৌশলী হাসান আলী, চেয়ারম্যানের একান্ত সচিব কবির খান ও তার স্ত্রী সাথে ছিলেন। 

এছাড়াও বকশীগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান আব্দুর রউফ তালুকদার, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মুনমুন জাহান লিজা ও সহকারী কমিশনার (ভুমি) স্নিগ্ধা দাশ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, ২০১৫ সালে ২১ মে কামালপুর এলসি স্টেশনটিকে ১৫তম পুর্নাঙ্গ স্থল বন্দর হিসাবে ঘোষনা করে বাংলাদেশ স্থল বন্দর কর্তৃপক্ষ। জমি অধিগ্রহন জটিলতায় এতদিন কামালপুর স্থল বন্দরের অবকাঠামোর কাজ ঝুলে ছিল। সকল জটিলতা অবসান করে অবশেষে গত বছর অক্টোবর মাসে কামালপুর স্থল বন্দরের উন্নয়ন কাজ চালু হয়।

১৯৪৭ সালে দেশ বিভাগের পর এটি পুর্নাঙ্গ স্থল বন্দর হিসাবে চালু করে ভারত-পাকিস্তান। ১৯৬৫ সালে পাক-ভারত যুদ্ধে এই স্থল বন্দরটি বন্ধ করে ভারত সরকার। পরবর্তীতে ১৯৭৪ সালে এটি এলসি স্টেশন হিসাবে চালু করা হয়।  



শেয়ার করুন

-সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

0 comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।