গাইবান্ধায় জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে সাংবাদিকের থানায় জিডি !

গাইবান্ধায় জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে সাংবাদিকের থানায় জিডি !


আশরাফুল ইসলাম গাইবান্ধা : রংপুর সংবাদ পত্রিকা ও কেটিভি বাংলার জেলা প্রতিনিধি সাংবাদিক সুমন মন্ডলের উপর হামলার ঘটনায় জড়িত মামলার প্রধান আসামি মোঃ লিটন মিয়া এখনো গ্রেফতার না হওয়ায় মামলার বাদী সুমন মন্ডলকে প্রাণনাশের হুমকিসহ নানাভাবে ভয়ভীতি দেখাচ্ছে । 

তাই নিজের জীবন ও পরিবারের সদস্যদের নিরাপত্তা চেয়ে সাংবাদিক সুমন মন্ডল গত ২৫ এপ্রিল গাইবান্ধা সদর থানায় লিটন মিয়ার বিরুদ্ধে সাধারণ ডায়রি করে।

অভিযোগ সুত্রে জানা যায় , আসামি লিটন গাইবান্ধা সদর উপজেলার রামচন্দ্রপুর ইউনিয়নের একজন কুখ্যাত জুয়াড়ি ও আলোচিত বাবলু মাস্টার হত্যা মামলার অন্যতম আসামি। সুমন মন্ডলের সংবাদ প্রকাশের পর গত ৬ এপ্রিল গাইবান্ধা সদর থানা পুলিশের একটি দল অভিযান পরিচালনা করে বেশ কয়েকজন জুয়াড়িকে আটক করে। এরই জের ধরে লিটনের নেতৃত্বে সেলিম ও নজমলসহ অপরিচিত বেশ কয়েকজন সন্ত্রাসী সুমনের পথ আটকিয়ে তাকে বেধড়ক মারপিট করে মারাত্মক ভাবে আহত করে এবং তার কাছে থাকা নগদ টাকা ও ক্যামেরা ছিনিয়ে নিয়ে যায়। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে গাইবান্ধা জেলা হাসপাতালে ভর্তি করায়। এ ঘটনায় সুমন মন্ডল বাদী হয়ে লিটন মিয়া , মোঃ নজমল হক ও সেলিম মিয়া সহ অজ্ঞাত ১৫ জনকে আসামি করে সদর থানায় একটি মামলা দায়ের করলে গত ১২ এপ্রিল পুলিশ এজাহার ভুক্ত আসামি নজমল ও সেলিমকে গ্রেফতার করে ।

তবে এ মামলার প্রধান আসামি লিটন পলাতক থাকায় পুলিশ তাকে গ্রেফতার করতে পারেনি কিন্তু লিটন মোবাইল ফোনে সুমন মন্ডলকে মামলা তুলে নিতে বলছে নাহলে খুন জখম করার হুমকি দিয়ে আসছে । এ বিষয়ে সাংবাদিক সুমন মন্ডল বলেন, আসামি লিটন আমাকে নানাভাবে ভয়ভীতি দেখাচ্ছে এমনকি আমাকে প্রাণনাশের হুমকি দিচ্ছে তাই আমি আমার ও আমার পরিবারের সদস্যদের জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে লিটনের বিরুদ্ধে একটি সাধারণ ডায়রি করেছি যার নম্বর-১২৯৬ এবং তাকে যেন দ্রুত গ্রেফতার করা হয় এই দাবি জানাচ্ছি । উলেখ্য আসামি লিটন মিয়ার বিরুদ্ধে জুয়া সহ নানা ধরনের অপরাধমূলক কর্মকান্ডে জড়িত থাকার অভিযোগ রয়েছে। সে গাইবান্ধা সদর উপজেলার রামচন্দ্রপুর ইউনিয়নের রঘুনাথপুর গ্রামের চাঞ্চল্যকর বাবলু মাষ্টার হত্যার এজাহার ভুক্ত আসামি ।   



শেয়ার করুন

-সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

0 comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।

Dara Computer Laptops