পোষ্টার ছিঁড়ে আমার জনপ্রিয়তা কমানো যাবে না- স্বতন্ত্র প্রার্থী

পোষ্টার ছিঁড়ে আমার জনপ্রিয়তা কমানো যাবে না- স্বতন্ত্র প্রার্থী
বাঁশখালী পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র পদপ্রার্থী (স্বতন্ত্র) কামরুল ইসলাম হোসাইনির নির্বাচনী পোস্টার ছিঁড়ে নালায় ফেলে দেয়ার ছবি। ইনসেটে কামরুল ইসলাম হোসাইনী। 


বাঁশখালী প্রতিনিধি (চট্টগ্রাম): চট্টগ্রামের বাঁশখালী পৌরসভার মেয়র প্রার্থী (স্বতন্ত্র) সাবেক মেয়র কামরুল ইসলাম হোসাইনীর নির্বাচনী পোষ্টার ছেঁড়ার অভিযোগ উঠেছে।

শুক্রবার (৩১ ডিসেম্বর) সকালে পৌরসভার ৭ নম্বর ওয়ার্ড এলাকায় ও পৌরসভার বিভিন্ন অভ্যন্তরিণ এলাকায় সাবেক পৌরমেয়র স্বতন্ত্র প্রার্থী কামরুল ইসলাম হোসাইনী এর পোস্টার ছেড়া অবস্থায় রাস্তায় ও নালায় পড়ে থাকতে দেখা যায়

পোস্টার ছেঁড়ার বিষয়ে জানতে চাইলে মেয়র প্রার্থী (স্বতন্ত্র) কামরুল ইসলাম হোসাইনী বলেন, পোষ্টার ছেঁড়া একটি ছোটলোকি কাজ। পোস্টার ছেঁড়ার মাধ্যমে আমাদেরকে জনগণের মন থেকে মুছে ফেলতে পারবে না। আমরা গণতান্ত্রিক আন্দোলনের অংশ হিসেবে এ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেছি। এই নির্বাচনে জয়লাভ করার জন্য রাজনৈতিক দল হিসেবে আমাদের যা যা করণীয় আমরা তাই তাই করবো। আমার দৃঢ় বিশ্বাস জনগণ আমার মোবাইল মার্কা প্রতীকে ভোট দেওয়ার জন্য উৎসুক হয়ে আছে।

তিনি অভিযোগ করে আরো বলেন, আমার প্রতিপক্ষের প্রার্থীর লোকজন পোষ্টার ছেঁড়ার পাশাপাশি আমার কর্মী সমর্থকদের বিভিন্নভাবে হুমকিধমকি দিচ্ছে। বাঁশখালীতে সংঘটিত পূঁজামন্ডপ হামলার ঘটনায় অজ্ঞাতনামা তালিকায় আমার কর্মীদের মিথ্যা মামলার আসামী করার মতো হুমকিও দিচ্ছে তারা। এতে আমার নির্বাচনী প্রচার ও প্রচারণায় ভীতি সৃষ্টি করা হচ্ছে। এভাবে পোষ্টার ছিঁড়ে কখনো আমাকে জনগণের কাছ থেকে দূরে রাখা যাবে না। আমার মোবাইল প্রতীক জনগণের প্রতিক। জনগণ সুষ্টু নির্বাচন চায়। যদি নির্বাচন কমিশন নুন্যতম সুষ্ঠু ভোট দিতে সক্ষম হয় তবে আমাদের বিজয় সুনিশ্চিত বলে আমি বিশ্বাস করি। 

এসময় তিনি আরও বলেন, প্রতিপক্ষের প্রার্থীর পোস্টার ছেঁড়া ও তাদের নির্বাচনী প্রচারণায় বাধা তৈরি করার মাধ্যমে আওয়ামী লীগের নৌকা সমর্থিত প্রার্থী নির্বাচন আচরণ বিধিমালা লঙ্ঘন করছেন। এ বিষয়ে আমরা নির্বাচন কমিশনকে অবহিত করেছি।আমি আশা করবো একটি সুষ্ঠু নির্বাচনের স্বার্থে জনগণের ভোটাধিকার ফিরিয়ে দেওয়ার স্বার্থে গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের স্বার্থে নির্বাচন কমিশন এসব বিষয় খুব দ্রুত কার্যকরী পদক্ষেপ গ্রহণ করবে।

উল্লেখ্য, আগামী ১৬ জানুয়ারী বাঁশখালী পৌরসভার ভোটগ্রহণ সম্পন্ন হবে। প্রতিক বরাদ্দের পরপরই বাঁশখালী পৌরসভার মেয়র ও কাউন্সিলরদের প্রচার প্রচারণা শুরু হয়।


শেয়ার করুন

-সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

0comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।