ডেপুটি স্পিকারের মৃত্যুতে আবুল কালাম আজাদ এম‌পির শোক প্রকাশ

ডেপুটি স্পিকারের মৃত্যুতে আবুল কালাম আজাদ এম‌পির শোক প্রকাশ



 : জাতীয় সংসদের ডেপুটি স্পিকার ও গাইবান্ধা-৫ আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট মো. ফজলে রাব্বী মিয়ার মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন প‌রিকল্পনা মন্ত্রণাল‌য় সম্প‌র্কিত সংসদীয় স্থায়ী ক‌মি‌টির সভাপ‌তি,সা‌বেক তথ‌্য এবং সংস্কৃ‌তিমন্ত্রী,জামালপুর ০১ আস‌নের সংসদ সদস‌্য আবুল কালাম আজাদ।


এক শোক বার্তায় আবুল কালাম আজাদ এম‌পি বলেন, ফজলে রাব্বী মিয়া গণমানুষের নেতা ছিলেন। মহান জাতীয় সংসদের ডেপুটি স্পীকারের মৃত্যুতে দেশ একজন নিবেদিত প্রাণ রাজনীতিবিদ, বিজ্ঞ পার্লামেন্টারিয়ান এবং  আইনজ্ঞকে হারালো। তাঁকে হারানো বাংলাদেশের রাজনীতির জন্য একটি অপূরণীয় ক্ষতি। 

তি‌নি মরহুমের রুহের মাগফিরাত কামনা করেন এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেন। 

আরও পড়ুন: ডেপুটি স্পিকার ফজলে রাব্বী মিয়া আর নেই

ডেপুটি স্পীকার ফজলে রাব্বী মিয়া গত রাত ২টায় (নিউ ইয়র্ক সময় বিকাল ৪টা) মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নিউ ইয়র্কস্থ মাউন্ট সিনাই হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইন্তেকাল করেন।


ফজলে রাব্বী মিয়া ১৯৮৬ সালের তৃতীয়, ১৯৮৮ সালের চতুর্থ, ১৯৯১ সালের পঞ্চম ও ১২ জুন ১৯৯৬ সালের সপ্তম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে গাইবান্ধা-৫ আসন থেকে জাতীয় পার্টির প্রার্থী হিসেবে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। এর পর ২০০৮ সালের নবম, ২০১৪ সালের দশম ও ২০১৮ সালের একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে গাইবান্ধা-৫ আসন থেকে তিনি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসেবে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।দশম সংসদ থেকে তিনি ডেপুটি স্পিকার হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।


উ‌ল্লেখ‌্য,অষ্টম শ্রেণির ছাত্র থাকা অবস্থায় ১৯৫৮ সালে পাকিস্তানের সামরিক শাসক আইয়ুব খান মার্শাল ল জারি করলে তার বিরোধিতার আন্দোলনে নেমে প্রথম আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে জড়িয়ে পড়েন তিনি।


রাজনৈতিক সংগ্রামের ধারাবাহিকতায় একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধে ১১ নম্বর সেক্টরের যোদ্ধা হিসেবে অংশ নেন প্রয়াত ফজলে রাব্বী মিয়া।


শেয়ার করুন

সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

0comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।