নন্দীগ্রামে সড়কে ত্রিমুখী সংঘর্ষে শিক্ষার্থী-শিশুসহ নিহত ৩

🕧Published on:

 : বগুড়ার নন্দীগ্রামে মহাসড়কে মালবাহী পিকআপ, যাত্রীবাহী অটোরিকশা ও বাঁশ ভর্তি ভটভটির ত্রিমুখী সংঘর্ষে শিশুসহ তিনজন নিহত হয়েছেন। গুরুতর আহত অন্তত ৫জনকে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। 

নন্দীগ্রামে সড়কে ত্রিমুখী সংঘর্ষে শিক্ষার্থী-শিশুসহ নিহত ৩
বগুড়ার নন্দীগ্রামে কুন্দারহাট বাসস্ট্যান্ডে মহাসড়কে পিকআপ, অটোরিকশা ও বাঁশ ভর্তি ভটভটির ত্রিমুখী সংঘর্ষ হয়। ছবি: সেবা হট নিউজ



 সোমবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে বগুড়া-নাটোর মহাসড়কের কুন্দারহাট বাসস্ট্যান্ড এলাকায় এ মর্মান্তিক দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন- নন্দীগ্রাম পৌর এলাকার দামগাড়া মহল্যার মৃত আবু তালেবের ছেলে অটোরিকশা চালক হেফজুল বাহার (৪০), ওমরপুর এলাকার তানসেন আলীর ছেলে আব্দুল আলিফ (৩) এবং নামুইট মহল্যার সাখাওয়াত হোসেনের ছেলে রাজশাহী সিটি কলেজের শিক্ষার্থী মিনহাজুল ইসলাম (২০)। আহতরা হলেন- ওমরপুর মহল্যার তানসেন আলীর স্ত্রী মুমি আকতার (২০) ও তার বাবা-মা উপজেলার হাটধুমা গ্রামের শহিদুল ইসলাম (৪৫) এবং মমেনা খাতুন (৪০)। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত আহত অন্য দুইজনের পরিচয় পাওয়া যায়নি। 

স্থানীয়রা ও হাইওয়ে পুলিশ জানিয়েছে, নন্দীগ্রাম বাসস্ট্যান্ড থেকে ছেড়ে আসা বগুড়াগামী অটোরিকশা ও বগুড়া থেকে ছেড়ে আসা নাটোরগামী পিকআপ (ঢাকা-মেটো ন- ১৬-২৩৮৩) কুন্দারহাট বাসস্ট্যান্ডে মহাসড়কে পৌঁছিলে ভাটগ্রাম হাটখোলা রাস্তা থেকে বাঁশভর্তি ভটভটি ওঠার সময় ত্রিমুখী সংঘর্ষ হয়। এতে অটোরিকশাটি দুমড়ে মুচড়ে যায়। ঘটনাস্থলেই কলেজছাত্র, শিশু ও অটোরিকশা চালক নিহত হন। হাইওয়ে থানা পুলিশ ও নন্দীগ্রাম ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা দুর্ঘটনাস্থল থেকে আহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে প্রেরণ করে। 

কুন্দারহাট হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (এসআই) হাসানাত আলী বলেন, মরদেহগুলো তাদের পরিবারের নিকট হস্তান্তর করা হয়েছে। পিকআপের চালক ও হেলপারকে পাওয়া যায়নি। অটোরিকশা এবং পিকআপ আটক করা হয়েছে। 



শেয়ার করুন

সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

0comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।