গাইবান্ধায় নগদ এর তিন ভুয়া কর্মকর্তাকে আটক

গাইবান্ধায় নগদ এর তিন ভুয়া কর্মকর্তাকে আটক
জেলা প্রতিনিধি, গাইবান্ধা: সাংবাদিক আতিকুর রহমান আতিক বাবু দেওয়া সংবাদের ভিক্তিতে গাইবান্ধা সদর থানার অফিসার ইনচার্জ খান মোঃ শাহরিয়ার এর নেতৃত্বে এস আই জহুরুলসহ সঙ্গীয় ফোর্স গাইবান্ধায় ডাক বিভাগের নগদ এর একাউন্ড খোলার নামে প্রতারক (দায়িত্বপ্রাপ্ত) তিন ভুয়া কর্মকর্তাকে, ৯ জুলাই মঙ্গলবার দুপুরে পাবলিক লাইব্রেরী থেকে আটক করে।

জানা যায় যে, বাংলাদেশ ডাক বিভাগের মোবাইল ব্যাংকিং নগদ এর দেশবাপী গ্রাহক বৃদ্ধিকল্পে বেসরকারি নাম মাত্র প্রতিষ্ঠান বিএম করপোরেশন এর নামে রংপুর বিভাগ জুড়ে বাড়ী বাড়ী গিয়ে নগদের একাউন্ট খোলার জন্য বিভাগে একজন ম্যানেজার, ৮ টি জেলায় একজন করে জেলা ম্যানেজার, উপজেলা জুড়ে একজন ম্যানেজার, প্রতিটি ইউনিয়নে একজন করে মাঠকর্মী নিয়োগ দিতে অর্থ গ্রহন করে এই চক্রটি।  ৯ জুলাই গাইবান্ধা পাবলিক লাইব্রেরীতে এই চক্রের কয়েকজন সদস্য ও গাইবান্ধা জেলার বেকার যুবক যুবতিদের নিয়ে নগদ এর একাউন্ট ওপেন ওয়ার্কসপ পরিচালনাকালে তাদের এ কার্যক্রমের বৈধতা সম্পর্কে সাংবাদিকগণ ও থানা পুলিশের কর্মকর্তা জানতে চাইলে ও কার্যক্রমের সত্যতা যাচাইয়ের কাগজপত্রাদি দেখতে চাইলে তারা কোন প্রকার কাগজপত্রাদি দেখাতে পারেনি।

উপস্থিত বেকার যুবক যুবতিদের প্রথম টাকা গ্রহনের কথা বলা হলে সকলেই এ চক্রে টাকা প্রদানের কথা অস্বীকার করে। পরে এ চক্রের বগুড়া জেলায় নিয়োগপ্রাপ্ত প্রতারণার স্বীকার বগুড়ার ম্যানেজার বলেন যে তার নিকট হতে ২ হাজার টাকা নেয় এ চক্রের অন্যান্য সদস্যরা। এরপর পরেই উপস্থিত সকল যুবক যুবতি জানান যে, বাড়ী বাড়ী গিয়ে নগদ এর একাউন্ট খুলে দেওয়ায় একাউন্ট প্রতি দশটাকা দেওয়া হবে মর্মে তাদের নিকট হতে রেজিস্ট্রেশন ফ্রি বাবদ ও আজকের ওয়ার্কসপে অংশগ্রহনের জন্য প্রত্যেকের নিকট হতে ৩৫০ টাকা করে নেয় এ চক্রটি। পরে তারা তাদের প্রদানকৃত টাকা ফিরে পেতে পুলিশ ও সাংবাদিকদের সহযোগীতা কামনা করেন।

পরে ওয়ার্কসপে উপস্থিত বিএম করর্পোরেশনের সিইও তৌফিক হাসান,রংপুর বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সুলতান সাব্বির, গাইবান্ধা জেলার দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আশিকুর রহমান এ কার্যক্রমের বৈধতা না দেখাতে পাড়ায় এবং কথাবার্তা সন্দেহজনক হলে পুলিশ তাদের আটক করে থানায় নিয়ে আসে।

ডাক বিভাগের মোবাইল ব্যাংকিং নগদ এর গাইবান্ধা জেলার এজেন্ট জানান,গাইবান্ধা জেলায় নগদ এর এরকম কার্যক্রম সম্পর্কে তার জানা নেই এ বিষয়ের বিস্তারিত ওসি সাহেব কে অবগত করবো।

থানা অফিসার ইনচার্জ খান মো.শাহরিয়ার জানান,প্রাথমিক জিজ্ঞাসা করে তদন্ত সাপেক্ষে আটককৃত বিরুদ্ধে যথাযথ আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।


 -সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

,

0 মন্তব্য(গুলি)

Comments Please