জবানবন্দিতে যা বললেন সেই ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী

জবানবন্দিতে যা বললেন সেই ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী
সেবা ডেস্ক: রাজধানী ঢাকার কুর্মিটোলা এলাকায় ধর্ষণের শিকার ঢাবি’র সেই শিক্ষার্থী আদালতে জবানবন্দি দিয়েছেন।

শুক্রবার মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের পরিদর্শক আবু সিদ্দিক নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের ২২ ধারায় জবানবন্দি রেকর্ডের আবেদন করেন। আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকা মেট্টোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট বেগম ইয়াসমিন আরা ভিকটিমের জবানবন্দি রেকর্ড করেন। এরপর ভিকটিমকে তার বাবার জিম্মায় দেয়ার আদেশ দেন।

এর আগে গত বৃহস্পতিবার ধর্ষক মজনুর সাতদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত। তার আগে মঙ্গলবার বিকেলে মামলাটির এজাহার আদালতে উপস্থাপন করা হয়।

ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট বেগম ইয়াসমিন আরা এজাহারটি গ্রহণ করে ক্যান্টনমেন্ট থানার পুলিশ পরিদর্শক মনিরুজ্জামানকে তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দেন।

মামলাটি তদন্তের জন্য সোমবার গোয়েন্দা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করে ক্যান্টনমেন্ট থানা পুলিশ। এর আগে সোমবার দুপুরে ভুক্তভোগী ওই শিক্ষার্থীর বাবা বাদী হয়ে ক্যান্টনমেন্ট থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলাটি দায়ের করেন।

মামলার অভিযোগ থেকে জানা যায়, গত ৫ জানুয়ারি বিকেল ৫টার দিকে ওই ঢাবি শিক্ষার্থী শেওড়া এলাকায় তার বান্ধবীর বাসায় যাওয়ার উদ্দেশে বিশ্ববিদ্যালয়ের বাসে করে রওনা দেন। সন্ধ্যা ৭টার দিকে বাসটি ক্যান্টনমেন্ট থানার কুর্মিটোলা বাস স্ট্যান্ডে থামে। শিক্ষার্থী বাস থেকে নেমে ফুটপাত দিয়ে শেওড়ার দিকে হাঁটতে থাকেন। আর্মি গলফ ক্লাব মাঠের কাছে পৌঁছলে পেছন দিক থেকে অজ্ঞাতনামা এক ব্যক্তি তার গলা ও মুখ চেপে ধরে। এতে মেয়েটি অজ্ঞান হয়ে গেলে তাকে পাশের ঝোঁপে নিয়ে ধর্ষণ করে।

এজাহারে আরো বলা হয়, ওই শিক্ষার্থীর জ্ঞান ফিরলে আসামি তাকে মারধর করে এবং ভয়-ভীতি দেখায়। তার কাছে বিভিন্ন কথা জিজ্ঞাসা করে। তার কাছ থেকে মোবাইলফোন, হাতঘড়ি, নগদ টাকা ও ব্যাগ ছিনিয়ে নেয়। একপর্যায়ে ওই ছাত্রী ঘটনাস্থল থেকে দৌড়ে রাস্তা পেরিয়ে রিকশা নিয়ে তার সহপাঠীর বাসায় যায়। সেখান থেকে সহপাঠীদের সহযোগিতায় তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের ওয়ান-স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) ভর্তি করা হয়।

এদিকে ঢামেক হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, ওই ঢাবি শিক্ষার্থীর শারীরিক অবস্থা বর্তমানে স্থিতিশীল। তবে তিনি ভীষণভাবে ট্রমাটাইজড। তার চিকিৎসায় সাত সদস্যের একটি মেডিকেল বোর্ড গঠন করা হয়েছে।

 -সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

0 comments

Comments Please

আপনার মূল্যবান মতামতের জন্য সেবা হট নিউজ পরিবারের পক্ষ থেকে আপনাকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি।

সেবা হট নিউজ : সত্য প্রকাশে আপোষহীন