বকশীগঞ্জে বাল্য বিয়ে ভেঙ্গে দিলো উপজেলা প্রশাসন

বকশীগঞ্জে বাল্য বিয়ে ভেঙ্গে দিলো উপজেলা প্রশাসন


সেবা ডেস্ক: জামালপুরের বকশীগঞ্জ উপজেলা প্রশাসনের হস্তক্ষেপে বাল্য বিয়ে পন্ড হয়েছে। এ ঘটনায় কণের মা মুচলেকা দিয়ে জরিমানার হাত রক্ষা পেয়েছে। 

সোমবার রাতে বকশীগঞ্জ উপজেলার মেরুরচর ইউনিয়নের মেরুরচর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

উপজেলা মহিলা অধিদপ্তরের আফিস সহকারী বাবু সুশান্ত কুমার চক্রবর্তী বাংলানিউজ জানান, বকশীগঞ্জ উপজেলার মেরুরচর ইউনিয়নের মেরুরচর গ্রামের সোলয়ামান হকের কন্যা শান্তি বেগম নামে এক অপ্রাপ্ত বয়স্ক মেয়ের সাথে বকশীগঞ্জ পৌর এলাকার ঘোষপাড়া গ্রামের নুর আলমের ছেলে মনোয়ার হোসেনের বিয়ের খবর শুনে হানা দেয়। 

পরে জন্ম নিবন্ধন পরীক্ষা করে ১৭ বছর পাওয়া যায়। তাৎক্ষনিক বাল্য বিয়েটি বন্ধ করে দেওয়া হয়। এবং ১ বছরের মধ্যে মেয়েকে বিয়ে দিবনা বলে একটি অঙ্গীকার নামায় স্বাক্ষর নেওয়া হয়।

বকশীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মুনমুন জাহান লিজা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।  



শেয়ার করুন

-সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

0 comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।