উল্লাপাড়ায় কিশোরী গণধর্ষণ মামলায় দুই তাঁত শ্রমিক গ্রেফতার

উল্লাপাড়ায় কিশোরী গণধর্ষণ মামলায় দুই তাঁত শ্রমিক গ্রেফতার



 : সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় চাচার বিয়ের অনুষ্ঠান থেকে বাড়ি ফেরার পথে ১১ বছর বয়সী এক কিশোরী দুই লম্পট বন্ধুর গণধর্ষণের স্বীকার  হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে উল্লাপাড়া উপজেলার দূর্গানগর ইউনিয়নের বালসাবাড়ী ইসলামপুর দক্ষিণপাড়া গ্রামে। 

ওই কিশোরী ইসলামপুর দক্ষিণপাড়া গ্রামের তাঁত শ্রমিকের মেয়ে। সোমবার রাতেই কিশোরীর বাবার মামলায় দুই ধর্ষককে গ্রেফতার করে উল্লাপাড়া মডেল থানা পুলিশ। 


গ্রেফতারকৃতরা হলো উপজেলার বালসাবাড়ী ইসলামপুর গ্রামের মোঃ হাসমত আলীর ছেলে গোলাম (২২) ও একই গ্রামের মানিক মিয়ার ছেলে নুর আলম (২৫)।


মামলা সুত্রে জানা গেছে, উপজেলার বালসাবাড়ী ইসলামপুর গ্রামে সোমবার বিকেলে তাঁত শ্রমিকের এক কিশোরী মেয়ে তার দাদার বাড়ীতে চাচার বিয়ে খেয়ে নিজ বাড়িতে ফিরছিল। 

পথিমধ্যে ইসলামপুর দক্ষিণপাড়া তাঁত কারখানার কাছে পৌছিলে ওই দুই যুবক কিশোরীকে একা পেয়ে মুখে গামছা পেঁচিয়ে জোরপূর্বক পার্শ্ববর্তী পরিত্যাক্ত বাড়ির বিল্ডিং রুমে নিয়ে যায়। 

সেখানে ওই কিশোরীকে প্রথমে গোলাম ও পরে নূর ইসলাম নামের দুই যুবক জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। 

ঘটনার সময় মেয়েটির আত্মচিৎকারে আশেপাশের লোকজন এগিয়ে এসে রক্তান্ত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে। এ সময় ধর্ষকেরা ঘটনার স্থল থেকে সুকৌশলে পালিয়ে যায়। পরে মেয়েটিকে চিকিৎসার জন্য সিরাজগঞ্জ সদর হাডপাতালে ভর্তি করে তার পরিবার।

এ বিষয়ে উল্লাপাড়া মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ হুমায়ূন কবির জানান, কিশোরীর বাবার অভিযোগের প্রেক্ষিতে ঘটনার সাথে জড়িত দুই যুবককে গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে জেল-হাজতে পাঠানো হয়েছে। কিশোরীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য সিরাজগঞ্জ সদর হাডপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। 


শেয়ার করুন

সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

0comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।