দশআনি নদীতে এক কিলোমিটার জুড়ে ভাঙন, বিলীন হচ্ছে ফসলি জমি!

দশআনি নদীতে এক কিলোমিটার জুড়ে ভাঙন, বিলীন হচ্ছে ফসলি জমি!



 : জামালপুরের বকশীগঞ্জে বন্যার পানির তীব্র স্রোতে দশআনি নদীতে এক কিলোমিটার জুড়ে তীব্র নদী ভাঙন দেখা দিয়েছে। নদী ভাঙনের ফলে চোখের সামনেই বিলীন হচ্ছে ফসলি জমি সহ বসত ভিটা নদীর তীব্র ভাঙনের এখেলায় জমির মালিকরা দিশেহারা হয়ে পড়েছেন।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, গত এক সপ্তাহ থেকে উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলের কারণে বকশীগঞ্জ উপজেলার নি¤œাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে উজানের পানিতে ব্রহ্মপত্র নদ, দশানী নদী ও জিঞ্জিরাম নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়ে বিভিন্ন এলাকায় বন্যা দেখা দিয়েছে ।

এবারের বন্যায় সাধুরপাড়া ইউনিয়নের চর আইরমারী গ্রামে দশানীতে ব্যাপক ভাঙন দেখা দিয়েছে ভাঙনের কবলে পড়ে এই গ্রামের ফসলি জমি নদী গর্ভে বিলীন হচ্ছে।

চর আইরমারী গ্রামের দশানী নদীতে গত সাত দিন থেকে অনবরত ফসিল জমি ভাঙনের ফলে পাট ক্ষেত, আখ ক্ষেত সহ বিভিন্ন ফসলি জমি নদীতে চলে যাচ্ছে এখন পর্যন্ত এক কিলোমিটার জুড়ে তীব্র ভাঙন শুরু হয়েছে স্থানীয়রা জানিয়েছেন নদী ভাঙনের কারণে ১০০ বিঘা ফসলি জমি নদী গর্ভে বিলীন হয়েছে ।

চর আইরমারী গ্রামের কৃষক শাহ আলম জানান, গত দুই বছরে আমার পাঁচ বিঘা জমি নদীতে চলে গেছে। 

একই গ্রামের শাহীন আলম জানান, কষ্ট করে আবাদ করি কিন্তু চোখের সামনে সেই আবাদের ফসল যদি নদীতে চলে যায় তখন বুকটা হাহাকার করে তিনি নদী ভাঙন রোধে কর্তৃপক্ষের নিকট ক্রস বাঁধ নির্মাণ সহ প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়ার অনুরোধ জানান। 

স্থানীয়দের দাবি গত সাত দিন ধরে যেভাবে ফসলি জমি ভেঙে যাচ্ছে আগামি এক মাসের মধ্যে চর আইরমারী গ্রাম বিলীন হয়ে যাবে।

এই গ্রামকে রক্ষা ও ফসলি রক্ষায় এখনি পদক্ষেপ না নিলে বকশীগঞ্জের মানচিত্র থেকে চর আইরমারী গ্রাম নিচিহ্ন হতে পারে। 

সাধুরপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মাহমুদুল আলম বাবু বাবু, সাধুরপাড়া ইউনিয়নের ৪ টি গ্রামের মধ্যে সবচেয়ে বেশি নদী ভাঙন দেখা দিয়েছে চর আইরমারী গ্রামটিতে প্রতি বছরই চরাঞ্চলে বন্যা হওয়ায় নদীর কড়াল গ্রাসে বিলীন হয় ফসলি জমি এই গ্রামটিকে রক্ষায় পানি উন্নয়ন বোর্ড সহ সংশ্লিষ্টদের এগিয়ে আসার অনুরোধ জানান এই জনপ্রতিনিধি।

এবিষয়ে বকশীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) মুন মুন জাহান লিজা জানান, বকশীগঞ্জ উপজেলার চর আইরমারী গ্রাম সহ বিভিন্ন গ্রামে নদী ভাঙনের খবর পেয়েছি সংশ্লিষ্ট ইউনিয়নের চেয়ারম্যানদের সঙ্গে কথা বলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নিকট তালিকা পাঠানো হবে।



শেয়ার করুন

সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

,

0comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।