পদ্মা ব্যাংকের ম্যানেজমেন্ট ট্রেইনি অফিসার পদের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত

: প্রথমবারের মত চতুর্থ প্রজন্মের পদ্মা ব্যাংক লিমিটেড নিয়োগ দিচ্ছে ম্যানেজমেন্ট ট্রেইনি অফিসার (এমটিও) পদে। শনিবার রাজধানীর দুটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে একযোগে অনুষ্ঠিত হয় এই পরীক্ষা। এতে সারা দেশ থেকে  বিপুল সংখ্যক চাকরিপ্রার্থী অংশগ্রহণ করেন।

পদ্মা ব্যাংকের ম্যানেজমেন্ট ট্রেইনি অফিসার পদের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত



 পদ্মা ব্যাংকের মানব সম্পদ বিভাগের তত্ত্বাবধানের কড়া নজরদারিতে অনুষ্ঠিত হয় পরীক্ষা। ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা তারেক রিয়াজ খান পরীক্ষা কেন্দ্র পরিদর্শন করেন। এই সময় উপস্থিত ছিলেন উপব্যবস্থাপনা পরিচালক ও সিআরও ফয়সাল আহসান চৌধুরী, এসইভিপি, চিফ হিউম্যান রিসোর্স অফিসার ও চিফ কমিউনিকেশন অফিসার এম আহসান উল্লাহ খান, এসইভিপি ও ইসলামি ব্যাংকিং ডিভিশন হেড সেলিম আনোয়ার, এসইভিপি ও আরএএমডি ও রিকভারি হেড ফিরোজ আলম এবং ইভিপি ও কোম্পানি সেক্রেটারি মঞ্জুরুল আহসান-সহ ব্যাংকের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।


পরীক্ষা কেন্দ্র পরিদর্শন শেষে তারেক রিয়াজ খান বলেন, একটি কঠিন সময়ের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে চাকরির বাজার। আন্তর্জাতিক শ্রম সংস্থা (আইএলও)-বলছে বিশ্বে বেকার মানুষের সংখ্যা চলতি বছর ২০ কোটি ৭০ লাখ ছাড়াবে। বাংলাদেশেও দিনে দিনে বাড়ছে এই হার। এই সময় পদ্মা ব্যাংক এমটিও এর মতো পোস্টে বড় নিয়োগ দিচ্ছে, যা চাকরিপ্রার্থীদের আশা যোগাবে নতুন ও সম্ভাবনাময় আগামী গড়ার। আমাদের পথচলায় মেধাবী যুবারা ভিন্ন ও নতুন মাত্রা যোগ করবে বলে আমার বিশ্বাস। 


চিফ হিউম্যান রিসোর্স অফিসার ও চিফ কমিউনিকেশন অফিসার এম আহসান উল্লাহ খান বলেন, স্বচ্ছতায় বিশ্বাসী পদ্মা ব্যাংক। নিজের যোগ্যতা ও মেধা দিয়েই ঠাই করে নিতে হবে বিজয়ীদের দলে। মানবসম্পদ বিভাগের কাজই হলো মেধার সঠিক বিন্যাস। নতুনদের হাত ধরে আগামীতে আমরা আরো বেশি সামনে এগিয়ে যেতে পারব বলে আমি বিশ্বাস করি। 


উল্লেখ্য সরকারি সোনালী, জনতা, অগ্রণী, রূপালী ব্যাংক ও আইসিবির মূল মালিকানায় পরিচালিত চতুর্থ প্রজন্মের পদ্মা ব্যাংক লিমিটেড। ৫৯টি শাখা ও ৩টি উপশাখার মাধ্যমে দেশজুড়ে গ্রাহকদের ব্যাংকিং সেবা দিয়ে আসছে চতুর্থ প্রজন্মের ব্যাংকটি।



শেয়ার করুন

সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

0comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।