জামালপুরে ডাক্তারদের কর্ম বিরতি, ভূগান্তিতে রোগীরা

জামালপুরে ডাক্তারদের কর্ম বিরতি, ভূগান্তিতে রোগীরা


লিয়াকত হোসাইন লায়ন, জামালপুর প্রতিনিধি: জামালপুরে ২৫০ শয্যার জামালপুর সদর হাসপাতালে এক নারী রোগীর মৃত্যুকে কেন্দ্র করে জরুরী বিভাগে বহিরাগতদের, হামলা,ভাংচুর ও দু’জন চিকিৎসক সহ ইনর্টানি চিকিৎসক আহত হওয়ার ঘটনা ডাক্তারদের কর্ম বিরতিতে চরম ভোগান্তীতে পড়েছে রোগীরা। 


জানা গেছে,জামালপুর শহররে ইকবালপুর এলাকার গুরুতর অসুস্থ করমনি (৬৪) নামের এক নারী চিকিৎসাধীন অবস্থায় ২৫ ডিসেম্বর দুপুরে জামালপুর সদর হাসপাতালে মারা যান। চিকিৎসার অবহলোয় মৃত্যুর অভযোগ তুলে রোগীর স্বজনরা হাসপাতালরে জরুরি বিভাগে হামলা ও আসবাবপত্র ভাংচুর করে। 

এতে দু’জন চিকিৎসক সহ ইনর্টানি চিকিৎসক গুরুতর আহত হন। এর জরে ধরে একই দনি হাসপাতাল ক্যাম্পাসে রহিরাগত লোকজন ও র্ইন্টান চিকিৎসকদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। এ সময় কয়কজেন র্ইন্টানি চিকিৎসক ছাড়াও সদররে ইউএইচএফপিও ডাঃ মো. লুৎফর রহমান পুলিশি নির্যাতনের শিকার হয়ে আহত হন।

হাসপাতালে হামলার ঘটনার প্রতিবাদে ২৭ ডিসেম্বর সকাল থেকে স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদ ও বাংলাদশে মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশন জেলা শাখার ডাকে সদর হাসপাতাল সহ উপজেলার ইসলামপুর সহ ৭টি উপজেলায় রোগী দেখা থেকে বিরত থাকেন চিকিৎসকরা। ফলে জরুরি সেবা নিতে আসা রোগীরা বঞ্চতি হয়েছেন। এতে ভর্তিতে থাকা রোগীদের দূর্ভোগ চরমে পৌছে। 

এ ঘটনায় জামালপুর সদর হাসপাতালের সহকারী পরচািলক ডাঃ মোহাম্মদ মাহফুজুর রহমান বাদী হয়ে ২৬ ডিসেম্বর রাতে সদর থানায় একটি মামলা দায়রে করেন। মামলায় পাঁচজনরে নামে এবং আরও অজ্ঞাত পরিচয়ে কয়কজনকে আসামি করা হয়েছে। তাদের  মধ্যে শহিদুল ইসলাম (৪২) ও সাইদুর রহমান (৩৮) নামরে দুই আসামীকে গ্রেফতার করেছে সদর থানা পুলিশ।


শেয়ার করুন

-সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

0 comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।