ধুনটে পল্লী বিদ্যুতের ৫টি ট্রান্সফরমার চুরি

ধুনটে পল্লী বিদ্যুতের ৫টি ট্রান্সফরমার চুরি

রফিকুল আলম,ধুনট (বগুড়া): বগুড়ার ধুনট উপজেলায় চিকাশি ও মোহনপুর গ্রামে ফসলের মাঠে একই রাতে পল্লী বিদ্যুতের ৫টি ট্রান্সফরমার চুরির ঘটনা ঘটেছে। ট্রান্সফরমার চুরি হওয়ায় পল্লী বিদ্যুতের গ্রাহকেরা চরম দুর্ভোগে পড়েছে। চুরির পর থেকে ওই এলাকায় বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ রয়েছে।      

এ ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্থ পল্লী বিদ্যুতের ৪ গ্রাহক সোমবার বিকেল ৩টার দিকে ধুনট থানায় পৃথকভাবে লিখিত অভিযোগ দিয়েছে। পুলিশ গ্রাহকদের ৪টি অভিযোগ থানায় সাধারণ ডাইরী (জিডি) হিসেবে রেকর্ডভুক্ত করে তদন্তে মাঠে নেমেছে।  

গ্রাহকদের অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার মোহনপুর গ্রামের মোসলেম উদ্দিনের ২টি, আব্দুল মোমিনের ১টি, আব্দুস ছালামের ১টি ও চিকাশি গ্রামের আয়নাল হকের ১টি ট্রান্সফরমার বাড়ির পাশে মাঠের ভেতর রেখে জমিতে পানি সেচ দিয়েছে। কিন্ত সেখানে ট্রান্সফরমার গুলো পাহারার কোন ব্যবস্থা ছিল না। এ অবস্থায় শনিবার রাতের কোন এক সময় দূর্বৃত্তরা ৫টি ট্রান্সফরমার চুরি করে নিয়েছে। রবিবার গ্রাহকেরা ফসলের মাঠে গিয়ে ট্রান্সফরমার চুরির বিষয়টি টের পেয়েছে।  

স্থানীয় গ্রাহকেরা জানান, এ এলাকায় রাতের আঁধারে একের পর এক ট্রান্সফরমার চুরির ঘটনা ঘটছে। পুনরায় ট্রান্সফরমার পেতে হলে গ্রাহকদের ট্রান্সফরমারের অর্ধেক মূল্য পল্লী বিদ্যুৎ অফিসে জমা দিতে হয়। এতে গ্রাহকেরা অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার পাশাপাশি তাদের অবর্ণনীয় দুর্ভোগে পড়তে হচ্ছে।

এ বিষয়ে পল্লী বিদ্যুতের ধুনট জোনাল অফিসের ডিজিএম মাহবুব জিয়া বলেন, জনসচেতনতা বাড়াতে বগুড়া পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির পক্ষ থেকে প্রচারপত্র বিলি ও মাইকিং এর ব্যবস্থা করা হয়েছে। নিজ নিজ এলাকার ট্রান্সফরমার চুরি ঠেকাতে প্রয়োজনীয় নজরদারি রাখতে গ্রাহকদের অনুরোধ জানানো হয়েছে। পল্লী বিদ্যুতের গ্রাহকদের সর্বোচ্চ সেবা প্রদানে আমাদের সব রকম প্রচেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

ধুনট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কৃপা সিন্ধু বালা বলেন, পল্লী বিদ্যুতের ট্রান্সফরমার চুরিসংক্রান্ত গ্রাহকদের লিখিত অভিযোগ গুলো আমরা পেয়েছি। ঘটনাটি তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। 


শেয়ার করুন

-সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

0 comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।