ডিজিটাল হচ্ছে দেশের সরকারি-বেসরকারি ৭৩টি গণগ্রন্থাগার

ডিজিটাল হচ্ছে দেশের সরকারি-বেসরকারি ৭৩টি গণগ্রন্থাগার



সেবা ডেস্ক: বাংলাদেশ সরকারের তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের উদ্যোগে ডিজিটালাইজ হতে যাচ্ছে দেশের ৭১টি সরকারি ও ২টি বেসরকারি গ্রন্থাগার। নতুন প্রজন্মের চাহিদা অনুসারে প্রযুক্তিকে কাজে লাগিয়ে জ্ঞানসমৃদ্ধ সমাজ বিনির্মাণে আইসিটি সফটওয়্যার ও যন্ত্রপাতিসহ গ্রন্থাগার সমূহের আধুনিকায়ন করাই হচ্ছে এর মূল লক্ষ্য।

মানসম্পন্ন অনলাইন সেবা কার্যক্রম সম্প্রসারণের মাধ্যমে গ্রন্থাগারগুলোকে পরিণত করা হবে ই-লাইব্রেরিতে।

এ বিষয়ে গতকাল রোববার রাতে আইসিটি বিভাগ ও সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ের মধ্যে ভার্চুয়ালি এক পর্যালোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলকের সভাপতিত্বে সভায় সংস্কৃতি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ, বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিলের নির্বাহী পরিচালক পার্থপ্রতিম দেব, গ্রন্থাগার অধিদফতরের মহাপরিচালক আবু বক্কর সিদ্দিক, বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিল এর পরিচালক (প্রশিক্ষণ) মো. এনামুল কবিরসহ তথ্য ও প্রযুক্তি বিভাগ এবং সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সংশ্লিষ্ট সংস্থার কর্মকর্তাগণ ভার্চুয়ালি উপস্থিত ছিলেন।

সভায় এই উদ্যোগ বাস্তবায়নের রূপরেখা নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়। সভায় জানানো হয়, প্রতিটি লাইব্রেরির জন্য থাকছে স্বতন্ত্র লাইব্রেরি ব্যবস্থাপনার ডিজিটাল পদ্ধতি যেখানে থরে থরে সাজানো থাকবে ই-বুক। থাকবে স্বতন্ত্র শিশু ও মুজিব কর্নার। প্রতিটি ই-লাইব্রেরি এমনভাবে সাজানো হচ্ছে যাতে পিসি ছাড়াও সব ধরনের মোবাইল থেকেই যেন স্বাচ্ছন্দ্যে গ্রন্থাগারে ভার্চুয়াল প্রবেশের মাধ্যমে পছন্দের বই পাঠক পড়তে পারেন।

সভায় আরো জানানো হয়, ল্যান নেটওয়ার্কে সংযুক্ত করে লাইব্রেরিগুলোকে ডিজিটাল রূপান্তরে তারহীন প্রযুক্তির ইন্টারনেট সংযোগ, আইপি ফোন, বিভাগীয় গ্রন্থাগারগুলোর জন্য আরএফআইডি প্রযুক্তির ব্যবস্থা করবে আইসিটি বিভাগ।  

শেয়ার করুন

-সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

0 comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।