নির্বাচন বর্জনের কথা জনবিচ্ছিন্ন দলই বলে: তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ

নির্বাচন বর্জনের কথা জনবিচ্ছিন্ন দলই বলে তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ



সেবা ডেস্ক: বাংলাদেশ সরকারের তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, জনবিচ্ছিন্ন দলই নির্বাচন বর্জনের কথা বলে। যাদের রাজনীতি জনগণ নির্ভর, তারা নির্বাচন বর্জন করে না।

শনিবার চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়া উপজেলা মিলনায়তনে বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদের রাঙ্গুনিয়া শাখা আয়োজিত চেক ও বস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে প্রধান অতিথির বক্তব্য শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি একথা বলেন।

‘বিএনপি সংবিধান অনুযায়ী সরকারের অধীনে নির্বাচনে যাবে না’ বিষয়ে জানতে চাইলে ড. হাছান মাহমুদ বলেন, বিএনপি যে ২০ দলীয় জোট বলছে, সেই জোট থেকে বেশ কয়েকটি দল পালিয়ে গেছে। 

এখন ২০ দলীয় জোট যে কত দলীয় জোট, সেটি একটি পরীক্ষা-নিরীক্ষার বিষয়। বিএনপি নেতারা যে বলছেন, সব দলকে নিয়ে আন্দোলন করবেন, তাদের মধ্যে ঐক্যটাই তো ভেঙে গেছে।

আগের নির্বাচনের কথা স্মরণ করিয়ে দিয়ে আওয়ামী লীগের এ যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বলেন, ২০১৮ সালের নির্বাচনের আগেও বর্জনের কথা বলেছিল। 

শেষ পর্যন্ত তারা নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেছে। যে সমস্ত দলের কোনো জনভিত্তি নেই, নির্বাচন বর্জনের কথা তারাই বলে। 

বিএনপিকে যদি জনমুখী রাজনৈতিক দল হিসেবে টিকিয়ে রাখতে হয়, তাহলে নির্বাচনে অংশ নেবার কোনো বিকল্প নেই। আমি আশা করবো, বিএনপি অতীতের মতো আত্মহত্যার সিদ্ধান্ত নিয়ে নির্বাচন বর্জনের দিকে যাবে না।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন কক্সবাজার জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা হিল্লোল বিশ্বাস, রাঙ্গুনিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান স্বজন কুমার তালুকদার, রাঙ্গুনিয়ার পৌর মেয়র শাহজাহান সিকদার, রাঙ্গুনিয়ার ইউএনও মো. ইফতেখার ইউনুচ, সহকারী কমিশনার ভূমি বাবু রাজীব চৌধুরী, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার শামসুল আলম তালুকদার প্রমুখ। 


শেয়ার করুন

-সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

,

0comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।