ওয়াশিংটনকে তথ্য জানাতে আপত্তি নেই বাংলাদেশের

ওয়াশিংটনকে তথ্য জানাতে আপত্তি নেই বাংলাদেশের



সেবা ডেস্ক: নিরাপত্তা বাহিনী’র উন্নয়নে এখন পর্যন্ত বাংলাদেশকে যুক্তরাষ্ট্র যেসব অনুদান দিয়েছে তা কোন কোন খাতে ব্যয় করা হয়েছে তা’র তথ্য ওয়াশিংটনকে দিতে আপত্তি নেই ঢাকা’র। 

প’ররাষ্ট্রমন্ত্রী . কে আবদুল মোমেন সোমবা’র তা’র দফতরে এই প্রতিবেদককে কথা বলেন।

অন্যদিকে যুক্তরাষ্ট্র স’রকা’র মানবাধিকা’র সু’রক্ষা নিশ্চিতে’র জন্য বৈদেশিক সহায়তা আইনে’র সঙ্গে লিহেই আইনে’র দুটি ধারা যুক্ত করেছে। ফলে এখন থেকে যেসব দেশ নিরাপত্তা উন্নয়ন খাতে যুক্তরাষ্ট্রে’র অনুদান পেতে চায়, সেসব দেশকে লিহেই আইনে’র ধারা অনুযায়ী চুক্তি ক’রতে হবে। এই চুক্তি হলে অনুদান পাওয়া দেশগুলোকে অনুদানে’র অর্থ কখন, কোথায়, কোন বাহিনী’র পেছনে খ’রচ করা হচ্ছে তা নিয়মিতভাবে যুক্তরাষ্ট্রকে জানাতে হবে। প’ররাষ্ট্রমন্ত্রী’র কথায় আভাস পাওয়া গেছে, এতে বাংলাদেশে’র আপত্তি নেই। আজ মঙ্গলবা’র প’ররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে বিষয়ে একটি আন্তঃমন্ত্রণালয় বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে। সেখানে বিষয়টি’র চূড়ান্ত ফয়সালা হওয়া’র কথা ‘রয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রে’র বাইডেন প্রশাসন গত ১০ ডিসেম্ব’র দেশে’র আইনশৃঙ্খলা ‘রক্ষায় নিয়োজিত এলিটফোর্স ্যাবে’র বর্তমান সাবেক সাত কর্মকর্তা’র ওপ’র নিষেধাজ্ঞা জারি করে। তা’র আগে ডিসেম্ব’র ওয়াশিংটন জানায়, এখন পর্যন্ত নিরাপত্তা খাতে যুক্তরাষ্ট্র যত ধ’রনে’র অনুদান দিয়েছে, তা কোন কোন খাতে ব্যয় হয়েছে তা’র হিসাব দিতে হবে। পাশাপাশি ভবিষ্যতে অনুদান পাওয়া’র জন্য লিহেই আইন মেনে চলতে হবে- এই মর্মে চুক্তি ক’রতে হবে।

যুক্তরাষ্ট্রে’র নিষেধাজ্ঞা কাটাতে বাংলাদেশ কী ক’রছে- প্রশ্নে’র জবাবে প’ররাষ্ট্রমন্ত্রী সোমবা’র এই প্রতিবেদককে বলেন, ‘এটা দুঃখজনক। আমরা স্বল্পোন্নত দেশ থেকে উন্নয়নশীল রাষ্ট্রে উত্তীর্ণ হওয়া’র পরীক্ষায় পাস করেছি। যত ধ’রনে’র পরীক্ষা ছিল, সবগুলোতেই আমরা পাস করেছি। প্রতিবেশী দেশগুলো’র তুলনায় আমরা দারিদ্র্য বিমোচন, শিশু মৃত্যুহা’র কমানোসহ প্রতিটি খাতে জয়লাভ করেছি। কিন্তু হঠাৎ দুর্ঘটনা ঘটল। সেটা হচ্ছে আমাদে’র দেশে’র ভালো সংস্থা, যাদে’র আমাদে’র দেশে’র লোকজন পছন্দ করে, যারা মানুষে’র গ্রহণযোগ্যতা পেয়েছে, তারা হচ্ছে ্যাব। হলি আর্টিজান হামলা’র প’র ্যাবে’র কা’রণে আ’র কোনো সন্ত্রাসী ঘটনা ঘটেনি, মানবপাচা’র প্রতিরোধেও ্যাবে’র উজ্জ্বল ভূমিকা আছে, সেই ্যাবে’র ওপ’র যুক্তরাষ্ট্র নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে। যুক্তরাষ্ট্রে’র একটি পদক্ষেপ হচ্ছে, দুনিয়া থেকে মাদক (ড্রাগ) নির্মূল ক’রবে, আমাদে’র দেশে ্যাব সে কাজ ক’রছে। মানবাধিকা’র নিশ্চিত করে যে ্যাব, তাকেই যুক্তরাষ্ট্র বলছে, তারা মানবাধিকা’র লঙ্ঘন করেছে।

প’ররাষ্ট্রমন্ত্রী আ’রও বলেন, ‘শুনেছি, আমাদে’র দেশে’র কিছু এনজিও যারা বিদেশি পয়সায় চলে তারা যুক্তরাষ্ট্রে’র কাছে ্যাব নিয়ে অভিযোগ করেছে। যুক্তরাষ্ট্র স’রকা’র কীভাবে এটা বিশ^াস ক’রল সেটা আমা’র কাছে তাজ্জব মনে হয়। সো আই ডোন্ট নো, আমেরিকান স’রকা’র নিশ্চয়ই তাদে’র সিদ্ধান্ত নেবে। তবে তারা স্বচ্ছতা’র ভিত্তিতে যদি খারাপ প্রতিষ্ঠানকে ‘রকম নিষেধাজ্ঞা দিত তা হলে ভালো ছিল। আমেরিকা আমাদে’র দীর্ঘদিনে’র বন্ধু। আমা’র বিশ^াস তারা এই নিষেধাজ্ঞা তুলে নেবে।

নিষেধাজ্ঞা তুলে নিতে বাংলাদেশ কী পদক্ষেপ নিচ্ছে- এমন প্রশ্নে’র জবাবে প’ররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা তাদে’র সঙ্গে যোগাযোগ রাখছি, আমেরিকাকে বিষয়ে জানাব। ্যাবে’র ভালো কাজগুলো সম্পর্কে যুক্তরাষ্ট্র স’রকা’রকে জানাব। এ’রই মধ্যে যুক্তরাষ্ট্র স’রকারে’রই একটি প্রতিবেদনে ্যাবে’র ভালো কাজ সম্পর্কে প্রশংসা করা হয়েছে। সেই প্রতিবেদনে তারাই বলেছে, ্যাব ভালো কাজ ক’রছে। আমাদে’র জানানো দ’রকা’র জানাব; কিন্তু তারা তো নিজেরাই স্বীকা’র ক’রতেছে।

নিরাপত্তা খাতে এখন থেকে অনুদান পাওয়া’র জন্য যুক্তরাষ্ট্রে’র লিহেই আইনে’র ধারা অনুযায়ী অনুদানে’র ব্যয়ে’র সব তথ্য ওয়াশিংটনকে জানাতে হবে। বাংলাদেশ কী আইন মেনে যুক্তরাষ্ট্র থেকে ভবিষ্যতে অনুদান নেবে- এমন প্রশ্নে’র জবাবে . কে আবদুল মোমেন বলেন, ‘এটা যুক্তরাষ্ট্র স’রকারে’র রুটিনকাজ। আমেরিকান স’রকা’র বিদেশে যে অর্থ পাঠায় তাদে’র ক’রদাতারা ওই অর্থ খ’রচে’র হিসাব জানতে চায়। আমাদে’র দেশে’র ক’রদাতাদে’রও জানা উচিত, তাদে’র করে’র অর্থ কোন কোন খাতে খ’রচ করা হয়। ওদে’র দেশে’র কংগ্রেসম্যান একটি আইন পাস করেছে, আমেরিকানরা যেখানে টাকা দেবে, বিশেষ করে অস্ত্র ব্যবহারে’র ক্ষেত্রে, সেগুলো এমন প্রতিষ্ঠানকে দেবে যারা মানবাধিকা’র লঙ্ঘনে’র সঙ্গে যুক্ত নয়। সেটাই তারা চেয়েছে, এটা পু’রনো বিষয়, নতুন কিছু নয়। এখন মিডিয়া এটা বড় করে দেখাচ্ছে। আমরা বিষয়টি যুক্তরাষ্ট্রকে স’রকারিভাবে জানাব। আ’র যুক্তরাষ্ট্রে’র কাছেও তাদে’র হিসাব আছে, কোথায় কত খ’রচ হচ্ছে, তা তাদে’র ওয়েবসাইটেও দেওয়া আছে। এখন তারা আমাদে’র কাছ থেকে জানতে চায়, দেখতে চায়, টালি করে যে আমরা যেটা বলছি সেটা ঠিক আছে কি না।’ 


শেয়ার করুন

-সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

0comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।