রৌমারীতে আর কতকাল জীবনের ঝুকি নিয়ে চলতে হবে আমাদের

রৌমারীতে আর কতকাল জীবনের ঝুকি নিয়ে চলতে হবে আমাদের
মানুষের কাছে শুনি দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে উন্নয়নের জোয়ার বইতেছে। আমি প্রশাসনের কাছে সুদৃষ্টি কামনা করছি

শফিকুল ইসলাম, রৌমারী প্রতিনিধি : কুড়িগ্রামের রৌমারীতে চর লাঠিয়াল ডাঙ্গা জিঞ্জিরাম নদীর উপর সেতু না থাকায় দূর্ভোগের শিকার সীমান্ত এলাকার ১৫ টি গ্রামের প্রায় ২৫ হাজার মানুষ। জীবনের ঝুকি নিয়ে নৌকা বা বাশেঁর সাঁকো দিয়ে পারাপার হচ্ছে তারা। 

স্বাধিনতার ৫০ বছর অতিবাহিত হলেও নির্মিত হয়নি একটি সেতু। একটি সেতুর দাবী নিয়ে বিভিন্ন দপ্তরে আবেদন দিলেও ফলপ্রæসূ হয়নি এখনও।

গত রবিবার সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, উপজেলার যাদুরচর ইউনিয়নের সীমান্তবর্তী লাঠিয়ালডাঙ্গা, আলগার চর, খেওয়ারচর, বিকরিবিল, বালিয়ামারী, বকবান্দা, ঝাউবাড়িসহ ১৫ টি গ্রামের ২৫ হাজার মানুষের দূর্ভোগের সীমা নেই। এছাড়া সীমান্তবর্তী অতন্ত্র প্রহরী বিজিবি ও পুলিশকে আসামীদের গ্রেফতার বা বিভিন্ন মামলার  তদন্ত করতে হিমশিম খেতে হচ্ছে। অপর দিকে কোমলমতি শিক্ষার্থীদেরও কষ্টের শেষ নেই। ওই এলাকার মানুষ জিঞ্জিরাম নদী নৌকা বা বাশেঁর সাঁকো দিয়ে পার হয়ে রৌমারী উপজেরা সদরসহ বিভিন্ন জেলা শহরে যাতায়াত করতে হয়। কৃষকের উৎপাদিত কৃষিজাত পণ্য ঘাড়ে করে অতিকষ্টে নদী পার হয়ে বাজারে আনতে হয়। এতে নৌকা ভাড়া দিতে হয় প্রতিমন  কৃষিপণ্য ১০, মানুষ ৫, মোটরসাইকেল ২০ ও বাইসাইকেল এর জন্য ৫ টাকা করে। বিভিন্ন এলাকায় বর্তমান সরকারের উন্নয়নের ছুয়া লাগলেও সীমান্ত এলাকার যোগাযোগ ব্যবস্থা একেবারেই নাজুক।

চর লাঠিয়াল ডাঙ্গা গ্রামের ৯৩ বছর বয়সী আব্দুস ছাত্তার দেওয়ানী জানান মৃত্যুর আগে জিঞ্জিরাম নদীর উপর সেতু দেখে যেতে পারলে আত্মাটা শান্তি পেত। তিনি আরো বলেন মানুষের কাছে শুনি দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে উন্নয়নের জোয়ার বইতেছে। আমি প্রশাসনের কাছে সুদৃষ্টি কামনা করছি। একই কথা বললেন বীর মুক্তিযোদ্ধা আজীম উদ্দিন। 

খেওয়ারচর গ্রামের রাশিদা বেগম জানান ব্রীজের অভাবে আংগ পাড়ার ছেলে মেয়েদের ভালো সমন্ধ আহে না।

এলাকাবাসি সুরুজ্জামাল জানান মাঝে মধ্যে এই বাশেঁ সাঁকো থেকে পড়ে অনেকেই দূর্ঘটনার শিকার হয়েছে।

এ বিষয় উপজেলা প্রকৌশলী জুবায়েদ হোসেন বলেন, আমরা তালিকা করে উদ্ধর্তন কর্তৃপক্ষের নিকট পাঠিয়েছি। অর্থ বরাদ্দ পেলে কাজ করা হবে। 

এ ব্যাপারে কথা হয় স্থানীয় সংসদ সদস্য প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী জনাব জাকির হোসেনের সাথে তিনি বলেন, ব্রীজটির জন্য আমি ডিও দিয়েছি আশা করি দ্রæত কাজ হবে। 

 


শেয়ার করুন

-সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

0comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।