বাংলাদেশে সৌদি আরবের বড় বিনিয়োগ চান প্রধানমন্ত্রী

বাংলাদেশে সৌদি আরবের বড় বিনিয়োগ চান প্রধানমন্ত্রী



: বাংলাদেশ সরকারের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চলে সৌদি আরবের বড় ধরনের বিনিয়োগের আহ্বান জানিয়েছেন। প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমি বাংলাদেশে সৌদি আরবের বিনিয়োগকে স্বাগত জানাই।


গণভবনে আজ বুধবার সকালে ঢাকা সফরে আসা সৌদি পররাষ্ট্রমন্ত্রী ফয়সাল বিন ফারহান আল সৌদ সৌজন্য সাক্ষাতে এলে প্রধানমন্ত্রী এ আহ্বান জানান। সৌজন্য সাক্ষাৎ শেষে প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম সাংবাদিকদের কাছে আলোচনার বিষয় তুলে ধরেন।


প্রধানমন্ত্রী আশা প্রকাশ করেন, সৌদি আরবের বিনিয়োগকারীরা বাংলাদেশের দেওয়া বিদ্যমান বিভিন্ন সুবিধা কাজে লাগাবেন। তিনি বলেন, বিশেষ অর্থনৈতিক জোনে সৌদি বিনিয়োগকারীদের জন্য জমি বরাদ্দ করাসহ তাদের সহযোগিতা জোরদারে প্রস্তুত বাংলাদেশ।


তিনি আরো বলেন, তার সরকার দেশব্যাপী ১শ’টি বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল প্রতিষ্ঠা করছে।


সৌদি আরবের সঙ্গে বিদ্যমান দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কের বিষয়ে সন্তেুাষ প্রকাশ করেন শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, অর্থনীতি, বাণিজ্য, বিনিয়োগ, জ্বালানি, শিক্ষা, সংস্কৃতি এবং প্রতিরক্ষাসহ বহু ক্ষেত্রে দ্বিপক্ষীয় সহযোগিতা প্রসারিত হয়েছে।


সৌদি আরবের অনেক প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশে জ্বালানি খাতে, বিশেষ করে নবায়নযোগ্য জ্বালানিতে বিনিয়োগ করতে চান বলে প্রধানমন্ত্রীকে জানান দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী।


বিশ্ব অর্থনীতিতে বাংলাদেশের অনেক কর্মী অবদান রাখছে বলেও মনে করেন ফয়সাল বিন ফারহান আল সৌদ। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দূরদর্শী নেতৃত্ব এবং বাংলাদেশের অর্থনৈতিক অগ্রগতি ও উন্নয়নের প্রশংসা করেন তিনি।


বাংলাদেশ ও সৌদি আরবের সম্পর্ককে ‘বন্ধুত্বের শক্ত বন্ধন’ হিসেবে অভিহিত করেন সৌদি পররাষ্ট্রমন্ত্রী। আগামী দিনে এই সম্পর্ক আরো দৃঢ় হবে বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি।


অর্থনৈতিক সহযোগিতার নতুন নতুন দিক উন্মোচনকে অগ্রাধিকার জানিয়ে ফয়সাল বিন ফারহান বলেন, বৈশ্বিক ইস্যুতেও বাংলাদেশের সঙ্গে একত্রিত হয়ে কাজ করতে চায় সৌদি।


প্রধানমন্ত্রী জানান, বাংলাদেশের মানুষের হৃদয়ে সৌদি আরবের জন্য একটি বিশেষ স্থান রয়েছে।


পররাষ্ট্রমন্ত্রীর মাধ্যমে সৌদি রাজা সালমান বিন আবদুল আজিজ আল সৌদ এবং যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান আল সৌদের প্রতি শুভেচ্ছা জানান শেখ হাসিনা।


প্রধানমন্ত্রী মুসলিম উম্মাহ’র দুই পবিত্র মসজিদের খাদেম সৌদি বাদশাহ সালমান বিন আব্দুল্লাজিজ আল সৌদের অবদানের প্রশংসা করেন।


এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন- পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন, অ্যাম্বাসেডর অ্যাট লার্জ মো. জিয়াউদ্দিন, প্রধানমন্ত্রীর মুখ্যসচিব আহমদ কায়কাউস, সৌদি আরবে ঢাকার দূত জাবেদ পাটোয়ারি, ঢাকায় সৌদি দূত এসা ইউসেফ এসা আল দুলাইহান।


শেয়ার করুন

সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

,

0comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।