রৌমারীতে পাহাড়ি ঢলে নিম্নাঞ্চল প্লাবিত, পানিবন্দি কয়েক হাজার মানুষ

রৌমারীতে পাহাড়ি ঢলে নিম্নাঞ্চল প্লাবিত, পানিবন্দি কয়েক হাজার মানুষ



 : ভারতীয় পাহাড়ি ঢলে কুড়িগ্রামের রৌমারী উপজেলার রৌমারী সদর, যাদুরচর ও শৌলমারী ইউনিয়নের নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে। শনিবার বেলা সাড়ে ১২ টার দিকে সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, পানিবন্দি হয়েছে ঝাউবাড়ি, লাঠিয়ালডাঙ্গা, চুলিয়ারচর, বারবান্দা, পূর্বইজলামারী, ভুন্দুরচর, চান্দারচর, নওদাপাড়া, ব্যাপারীপাড়া, বোল্লাপাড়া, খাটিয়ামারী, মেলাøারচর, বেহুলারচর, খেতারচর, বড়াইবাড়ি, রতনপুরসহ কয়েকটি গ্রাম। অপর দিকে চর নতুনবন্দর স্থলবন্দরটিও বন্যার পানিতে তলিয়ে গেছে। 

ফলে আমদানী ও রপ্তানী বন্ধ রয়েছে। গত কয়েকদিন থেকে টানা বৃষ্টি ও ভারতীয় আসাম রাজ্যের পাহাড়ি ঢল মানকারচর কালো নদী দিয়ে বাংলাদেশ সীমান্ত ঘেঁষা জিঞ্জিরাম নদী দিয়ে নেমে আসে। বন্যার পানি অস্বাভাবিক ভাবে বৃদ্ধি হওয়ায় জিঞ্জিরাম নদী উপচে গিয়ে ওইসব নি¤œাঞ্চল প্লাবিত হয়। এতে পানিবন্দি হয়ে পড়ে কয়েকটি গ্রাম। ফলে ওই এলাকার মানুষ জীবনের ঝুকি নিয়ে নৌকা বা ভেলা দিয়ে বিভিন্ন এলাকায় পারাপার হচ্ছে। 

রৌমারী সদর ইউপি সদস্য শফিকুল ইসলাম শফিক বলেন, কয়েকদিনের টানা বর্ষন ও ভারতের পাহাড়ি ঢলে আমার এলাকার চর নতুনবন্দর, চান্দারচর ও নওদাপাড়াসহ কয়েকটি গ্রাম প্লাবিত হয়েছে। ওই এলাকার মানুষ বর্তমানে নৌকা দিয়ে পারাপার হচ্ছে। 

রৌমারী সদর ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাক জানান, কয়েকদিনের টানা বর্ষনে আমার ইউনিয়নের কয়েকটি গ্রাম পানি বন্ধি হয়ে পড়েছে। আরো কয়েকদিন এ অবস্থা থাকলে পরিস্থিতি খারাপের দিকে যাবে।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কাইয়ুম চৌধুরী জানান, নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হওয়ায় পাট আংশিক ৩৫, আউস ধান ৩০, শাকসবজি ৫ হেক্টর ও তিল প্রায় ৩ একর তলিয়ে গেছে।



শেয়ার করুন

সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

,

0comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।