ধুনটে পূজায় বাড়তি আনন্দ বউ মেলা

ধুনটে পূজায় বাড়তি আনন্দ বউ মেলা
রফিকুল আলম,ধুনট : মেলার প্রবেশ মুখে বেলুন বিক্রেতাকে ঘিরে ধরা শিশুদের কলকাকলি। কেউ কিনছে, কেউ নেড়েচেড়ে দেখছে। প্রবেশদ্বার থেকে পুরো সড়কের দুই ধারে বাহারি পণ্যের পসরা। লোকের ভিড়ভাট্টায় দাঁড়ানোই মুশকিল। তবু সবার উঁকিঝুঁকি দিয়ে একটু দেখার চেষ্টা মেলায় কী কী পাওয়া যাচ্ছে। দুর্গাপ‚জায় বাড়তি আনন্দ দেয় এই বউ মেলা।

বগুড়ার ধুনট পৌর এলাকার সরকারপাড়া ইছামতি নদীর তীরে এক’শ বছরের বেশী সময় ধরে বসছে বউ মেলাটি। তারই ধারাবাহিকতায় এবারও দূর্গাপুজাকে ঘিরে ‘বউমেলা’ নামে ব্যতিক্রমী এই মেলা বসেছে। মেলায় আসা মানুষের ৯৫ শতাংশই নারী। এ জন্য এটি বউ মেলা নামে পরিচিত। মেলায় সব ধর্মের মানুষের মহামিলন ঘটে। মেলা যেন হয়ে ওঠে সার্বজনীন আনন্দ-বিনোদনের একটি অংশ। মেলায় সা¤প্রদায়িক স¤প্রীতির এক গভীর মেলবন্ধনের সৃষ্টি হয়।

মঙ্গলবার বিকেলের দিকে সরেজমিন মেলায় গিয়ে দেখা যায়, দেবীদর্শনের পাশাপাশি সবাই ভিড় জমাচ্ছেন মেলাতেও। পণ্যের পসরা নিয়ে মেলায় এসেছেন নানা গ্রামের ব্যবসায়ীরা। মিষ্টান্ন, শিশুতোষ খেলনা, চুড়ি, দুল, ফিতা, আলতা থেকে ঘর গৃহস্থালির বিচিত্র জিনিস। জিলাপি ভাজা হচ্ছে কয়েকটি দোকানে। বিক্রি হচ্ছে ধুমসে। মেলায় এসেছেন নন্দিতা রানী দাস। তিনি বলেন, পুরানো ঐতিহ্য ধরে রেখেছেন সরকারপাড়া বউ মেলাটি। এখনও কত দর্শনার্থী। আমি আসি ঐতিহ্যের গরম জেলাপি নিতে।

মেলায় সরু রাস্তায় চলতে হয় লাইন ধরে। হাঁটতে গিয়ে হঠাৎ দেখা যায়, এক দোকানি ঝুড়ির মধ্যে রসুন, কাঁচা মরিচ, পটোল, লেবু, আতা, কমলা আর ছোট্ট কিছু পাখি নিয়ে পসরা সাজিয়েছে। তবে এগুলো মাটির তৈরি। মাটির এই খেলনাগুলোর প্রতি আগ্রহ অনেকেরই। দীপ্তি রানি সাহা দাঁড়িয়ে দেখছিলেন। তিনি বলেন, এই জিনিস সব সময় পাওয়া যায় না। দেখতে ভালো লাগে। ছোটবেলার মেলার কথা মনে পড়ে।

সনাতন ধর্মাবলম্বী ছাড়াও অনেকে ঘুরতে এসেছেন একদিনের এই মেলায়। বন্ধুদের নিয়ে এসেছেন সোহেল মাহমুদ। তিনি বলেন, পুরনো স্মৃতির পটভ‚মিতে নতুন করে আঁচড় কাটে মেলাটি। তাই বছর ঘুরে এই দিনটির জন্য অপেক্ষায় থাকি। বৈশাখ আর প‚জা ছাড়া এমন আমেজ তো পাওয়া যায় না।

মেলা আয়োজক কমিটির সাধারণ সম্পাদক আনন্দ কুমার সরকার বলেন, এই মেলা আমাদের উৎসবের আমেজ আরও বাড়িয়ে দেয়। মঙ্গলবার বিজয়া দশমী। দেবী দুর্গা বিদায় নেবেন। মেলাও ভাঙবে। আবার আগামী বছর প্রতিমা বির্সজনের দিন বসবে এই মেলাটি।


 -সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

,

0 comments

Comments Please