রৌমারীতে দ্বিতীয় দফা বন্যা: দূর্ভোগে হাজার হাজার পরিবার

রৌমারীতে দ্বিতীয় দফা বন্যা দূর্ভোগে হাজার হাজার পরিবার



 : প্রথম দিনের ভারিবর্ষন, ব্রহ্মপুত্র নদ, হলহলি, সোনাভরি, জিঞ্জিরাম ও ভারতীয় পাহাড়ি ঢলে পানিবৃদ্ধি হয়ে কুড়িগ্রামের রৌমারীতে দ্বিতীয় দফা বন্যা দেখা দিয়েছে। প্রথম দফায় বন্যার পানিতে ক্ষতি পোশিয়ে উঠতে না উঠতেই আবারো নতুন করে বন্যা দেখা দিয়েছে। ফলে ১৩৯ টি প্রাথমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের মধ্যে অধিকাংশ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান পানিবন্দি হয়েছে। 


উপজেলার সাথে সংযোগ কাঁচাপাকাঁ প্রায় সবগুলো রাস্তা পানিতে তলিয়ে গছে। যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে প্রায় শতাধিক গ্রাম। চরম দূর্ভোগে পড়েছে ওইসব পরিবার। বন্যার পানি বেশি হওয়ায় আবাদী প্রায় ২ হাজার ৩০৬ হেক্টর জমির ফসল পানির নিচে তলিয়ে গেছে। হাজার হাজার পরিবার পানিবন্দি হলেও মাত্র ১৫’শ শুকনা খাবার বিতরণ করা হয়েছে। 

শক্রবার উপজেলার এলাকা ঘুরে দেখা গেছে, প্রথম দফা বন্যার রেশ কাটতে না কাটতেই গত একদিনের ভারি বর্ষণে ও ভারতীয় পাহাড়ি ঢলে রৌমারী ও রাজিবপুর উপজেলায় বন্যার পানিতে উত্তর চর সাজাই, দক্ষিণ চর সাজাই, আনন্দ বাজার, পাহুরার চর, পাখিউড়া, নতুন বাজার, সঙ্গ মাদবপুর, মোহনগঞ্জ, ব্যাপারীপাড়া, চর পাহাড়তলি, ঝাউবাড়ি, বকবান্দা লাঠিয়ালডাঙ্গা, চুলিয়ারচর, বড়াইবাড়ি, বারবান্দা, পূর্ব ইজলামারী, ভুন্দুরচর, চান্দারচর, নওদাপাড়া, ব্যাপারীপাড়া, নতুনবন্দর, বোল্লাপাড়া, চর বামনেরচর, সুতিরপার, খাটিয়ামারী, মেলাøারচর, বেহুলারচর, খেতারচর, বড়াইবাড়ি ও রতনপুরসহ প্রায় ১৪০ টি গ্রাম পানিবন্দি হয়েছে। 

বন্যার পানিতে বিভিন্ন অঞ্চলের কাঁচা-পাঁকা প্রায় সবকটি রাস্তা তলিয়ে যাওয়ায় যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। এসব এলাকার মানুষ জীবনের ঝুকি নিয়ে নৌকা বা ভেলা দিয়ে পারাপার হচ্ছে। অপর দিকে চর নতুনবন্দর স্থলবন্দরটিও বন্যার পানিতে তুলিয়ে যাওয়ায় আমাদানী ও রপ্তানী এখন পর্যন্ত বন্ধ রয়েছে। 

বন্যার পানি বৃদ্ধি হওয়ায় কর্মহীন হয়ে পড়েছে বহু শ্রমিক। বন্যার পানি বৃদ্ধি হওয়ায় প্রতিটি ঘরে ঘরে পানি উঠবে এবং বিপদে পড়বে ওই পরিবারগুলো। শুকনো খাবারের তীব্র সংকট দেখা দিয়েছে।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কাইয়ুম চেীধুরী জানান, চলতি বন্যায় আউস ধান ৯৪২, পাট ১ হাজার ১১৫, তিল ৭৮ ও শাকসবজি ১৫৫ হেক্টর জমির ফসল ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে। 

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা নজরুল ইসলাম বলেন, বন্যার পানি আবারো নতুন করে বৃদ্ধি হওয়ায় ইতোমধ্যে শতাধীক বিদ্যালয় মাঠে পানি উঠেছে।



শেয়ার করুন

সেবা হট নিউজ: সত্য প্রকাশে আপোষহীন

,

0comments

মন্তব্য করুন

খবর/তথ্যের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, সেবা হট নিউজ এর দায়ভার কখনই নেবে না।