বিএনপির নেতৃত্বে বড় ধরণের রদবদল হতে যাচ্ছে

বিএনপির নেতৃত্বে বড় ধরণের রদবদল হতে যাচ্ছে
সেবা ডেস্ক: বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপি ক্ষমতার বাইরে আছে প্রায় এক যুগ ধরে। রাষ্ট্রক্ষমতা থেকে ক্ষমতাচ্যুত হওয়ার পর থেকেই সরকার বিরোধী বিভিন্ন ইস্যুতে আন্দোলনে ব্যার্থতার পরিচয় দিয়েছে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপির বর্তমান নেতৃত্ব। রাজপথে আন্দোলনের ডাক দিয়ে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতারা আত্নগোপনে চলে যায় বলে বিএনপির তৃনমূল নেতাকর্মীদের অভিযোগ অনেকদিনের।

বিভিন্ন ইস্যুতে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপির বর্তমান নেতৃত্ব নিয়ে অনেকদিন ধরেই বিভিন্ন ধরণের ক্ষোভ ছিল দলের দুই প্রধান কর্ণধার খালেদা জিয়া এবং তারেক রহমানের। সর্বশেষ খালেদার মুক্তি আন্দোলন সফল করতে না পারায় সেই ক্ষোভ চূড়ান্ত রুপ ধারণ করে। ফলশ্রুতিতে খালেদার আইনজীবীদের মাধ্যমে সম্প্রতি খালেদার সাথে নেতৃত্ব পরিবর্তনের বিষয়ে পরামর্শ করেন তারেক।

বিএনপির দলীয় সূত্রে জানা গেছে, তারেক খালেদাকে বিএনপিতে নেতৃত্ব পরিবর্তনের ব্যপারে বেশ কিছু প্রস্তাবনা দেন খালেদার আইনজীবীদের মাধ্যমে। এসময় খালেদা তারেককে বর্তমান নেতৃত্বকে সম্পূর্ণ নিষ্ক্রিয় না করে তাদেরকে রেখেই শুধু দলীয় পদবী বা দায়িত্ব পরিবর্তন করে নতুন নেতৃত্ব নিয়ে আসার পরামর্শ দেন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক লন্ডনে তারেকের ঘনিষ্ঠ কয়েকজন বিএনপি নেতার সূত্রে জানা যায়, তারেক এবার বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপির নেতৃত্বে তরুণ প্রজন্মের নেতাদের নিয়ে আসতে চাচ্ছেন। তারেক লন্ডনে বিএনপির বিভিন্ন নেতাদের সাথে দলে নেতৃত্বে পরিবর্তনের ব্যপারে পরামর্শকালে বর্তমানে দলের শীর্ষ নেতৃত্বে থাকা বিভিন্ন নেতার রাজপথে আন্দোলনের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন। তারেক বলেন, আমাদের দলের স্থায়ী কমিটিতে এমন অনেকেই আছেন যারা শারীরিক অসুস্থতা সহ বিভিন্ন অযুহাত দেখিয়ে রাজপথের সক্রিয় আন্দোলন থেকে নিজেদের বিরত রাখেন। তারা শুধু মাত্র এসি রুমে বসে সংবাদ সম্মেলন আর মিটিং করতেই স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করেন। এছাড়া সিনিয়র কয়েকজন কেন্দ্রীয় নেতা সরকারের সাথে আঁতাত করেছেন বলেও সন্দেহ প্রকাশ করেন তারেক। তারেক দলের সিনিয়র নেতাদের সরিয়ে সাহসী এবং আগ্রাসী নেতৃত্ব নিয়ে আসার প্রতি জোর দেন পরামর্শ সভাতে।

দলের তরুণ নেতাদের তৃণমূল পর্যায়ে জনপ্রিয়তা এবং গ্রহণযোগ্যতা যাচাইয়ের লক্ষ্যে লন্ডন থেকে তারেক রহমান টেলিফোনে জেলা পর্যায়ের বিএনপির নেতাদের সাথে কথা বলছেন বলেও জানা গেছে।

বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপির দলীয় সূত্রে জানা গেছে বিএনপির নতুন নেতৃত্বে আসার সম্ভাবনা যাদের প্রবল তারা হলেন, হাবিব উন নবী খান সোহেল, মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানি ও তাবিথ আউয়াল এর মত তরুণ নেতারা। বিএনপির নতুন নেতৃত্ব ঈদের পর পরই ঘোষণা হতে পারে বলে দলীয় সূত্রে জানা গেছে।


,
themeforestthemeforest

ছবি কথা বলে